৩০ ডিসেম্বর, ২০২০ ০৪:০১ পিএম
কোনো কর্মসূচিতে অংশ না নিতে চিকিৎসকদের প্রতি আহ্বান

জামালপুরের ঘটনায় জড়িতদের বিচার দাবি বিএমএ’র

জামালপুরের ঘটনায় জড়িতদের বিচার দাবি বিএমএ’র
ছবি: সংগৃহীত

মেডিভয়েস রিপোর্ট: জামালপুরে চিকিৎসকদের উপর হামলার ঘটনায় জড়িত ব্যক্তিদের দ্রুত আইনের আওতায় এনে শাস্তি প্রদানের জন্য আহ্বান জানিয়েছে চিকিৎসকদের জাতীয় সংগঠন বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশন (বিএমএ)।

আজ বুধবার (৩০ ডিসেম্বর) বিএমএ’র দপ্তর সম্পাদক ডা. মোহা. শেখ শহীদ উল্লাহ স্বাক্ষরিত এক জরুরি সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ দাবি জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত ২৫ ডিসেম্বর রোগীর চিকিৎসাকে কেন্দ্র করে একদল দুষ্কৃতকারী কর্তৃক জামালপুর শেখ হাসিনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের জরুরি বিভাগ ভাঙচুর ও কর্মরত চিকিৎসকসহ অন্যান্য স্টাফদের উপর বর্বরোচিত হামলার পরিপ্রেক্ষিতে স্থানীয় পর্যায়ে গঠিত তদন্ত কমিটি আজ স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে তাদের তদন্ত প্রতিবেদন জমা দিয়েছে। তদন্ত প্রতিবেদনের উপর ভিত্তি করে হামলার সাথে জড়িত দোষী ব্যক্তিদের আইনের আওতায় এনে শাস্তি প্রদানের জন্য সংশ্লিষ্ট প্রশাসন দ্রুততম সময়ের মধ্যে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।

পাশাপাশি জড়িতদের শাস্তি নিশ্চিত করতে বিএমএ জামালপুর শাখার নেতৃবৃন্দ, স্থানীয় প্রশাসন ও রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দের সাথে বিএমএ'র কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ সার্বক্ষণিক যোগাযোগ রাখছেন ও প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণে বিএমএ জামালপুর শাখার নেতৃবৃন্দকে পরামর্শ দিয়ে যাচ্ছেন। উদ্ভূত পরিস্থিতিতে চিকিৎসকদের জাতীয় সংগঠন বাংলাদেশ মেডিকেল এসোসিয়েশনের নির্দেশনা ব্যতীত কোনো প্রকার কর্মসূচিতে অংশগ্রহণ না করার জন্য দেশের চিকিৎসকদের প্রতি অনুরোধ জানিয়েছে সংগঠনটি।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়েছে, হামলার ঘটনায় স্থানীয় পর্যায়ে জেলার সিভিল সার্জনের প্রতিনিধি, জেলা প্রশাসকের প্রতিনিধি, তিনজন স্থানীয় চিকিৎসক প্রতিনিধি ও সুশীল সমাজের প্রতিনিধি সমন্বয়ে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছিল।

প্রসঙ্গত, গত ২৫ ডিসেম্বর জামালপুরে শেখ হাসিনা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে গুরুতর আহত রোগী মৃত্যুবরণ করে। এ সময় রোগীর স্বজনরা চিকিৎসকদের অবহেলায় মৃত্যুর অভিযোগ তুলে কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. চিরঞ্জীব সরকারের উপর হামলা ও জরুরি বিভাগে ভাঙচুর চালায়। এতে বেশ কয়েকজন চিকিৎসক আহত হন। 

হামলায় আহত হন সদর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তাসহ ১৫ জন ইন্টার্ন চিকিৎসক। এ সময় ৪-৬ জন পুলিশ সদস্য উপস্থিত থাকলেও তারা নিরব দর্শকের ভূমিকা পালন করে বলে অভিযোগ করেন প্রত্যক্ষদর্শীরা।

আর হাসপাতালের সিসি ক্যামেরার ফুটেজে দেখা গেছে, ডা. লুৎফর রহমানকে ধাক্কা দিতে দিতে থানায় নিয়ে যাওয়া হয়।

►বিজ্ঞপ্তিটি দেখতে ক্লিক করুন

মেডিভয়েসের জনপ্রিয় ভিডিও কন্টেন্টগুলো দেখতে সাবস্ক্রাইব করুন MedivoiceBD ইউটিউব চ্যানেল। আপনার মতামত/লেখা পাঠান [email protected] এ।
  ঘটনা প্রবাহ : চিকিৎসক লাঞ্ছিত
  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি
জাতীয় ওষুধনীতি-২০১৬’ এর খসড়ার নীতিগত অনুমোদন

নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি