১৭ জানুয়ারী, ২০২১ ০৪:০৪ পিএম

গ্লোব বায়োটেকের ভ্যাকসিন ট্রায়ালের জন্য আবেদন

গ্লোব বায়োটেকের ভ্যাকসিন ট্রায়ালের জন্য আবেদন
ছবি: সংগৃহীত

মেডিভয়েস রিপোর্ট: বাংলাদেশের ওষুধ প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান গ্লোব বায়োটেকের উদ্ভাবিত করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন বঙ্গভ্যাক্স মানব দেহে ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালের জন্য আবেদন করেছে প্রতিষ্ঠানটি।

আজ রোবরাব (১৭ জানুয়ারি) বাংলাদেশ মেডিকেল রিসার্চ কাউন্সিলে (বিএমআরসি) এ আবেদন জমা দেওয়া হয়।

গ্লোব বায়োটেকের গবেষণা ও উন্নয়ন বিভাগের প্রধান ড. আসিফ মাহমুদ গণমাধ্যমকে এ তথ্য নিশ্চিত করে বলেন, ‘গ্লোব বায়োটেকের পক্ষে ক্লিনিক্যাল রিসার্চ অর্গানাইজেশন (সিআরও) লিমিটেড নামক একটি প্রতিষ্টান এ আবেদন জমা দিয়েছে।’

বিএমআরসিতে ২০টি ফাইলে ক্লিনিকাল ট্রায়ালেরে আবেদন জমা দেওয়া হয়। আবেদনে একসঙ্গে প্রথম ও দ্বিতীয় ট্রায়ালের অনুমোদন চাওয়া হয়েছে। বিএমআরসির অনুমোদন পেলে গ্লোব বায়োটেক মানবদেহে ট্রায়াল শুরু করতে পারবে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

গ্লোব বায়োটেকের তৈরি এ ভ্যাকসিনের নাম দেওয়া হয়েছে বঙ্গভ্যাক্স। এটিই দেশে ট্রায়াল হওয়া প্রথম করোনা ভ্যাকসিন।

অধ্যাপক ডা. মামুন আল মাহতাবের নেতৃত্বে ৫৭ জন বিশেষজ্ঞের একটি দল মানবদেহে বঙ্গভ্যাক্সের প্ররীক্ষামূলক প্রয়োগ ও গবেষণায় অংশগ্রহণ করবেন। অনুমোদন পাওয়ার ১০ দিনের মধ্যেই ট্রায়াল শুরু করতে পারবেন বলে জানিয়েছেন ডা. মাহতাব।  

প্রসঙ্গত, গত বছরের দুই জুলাই প্রতিষ্ঠানটি দেশে প্রথম ভ্যাকসিন আবিষ্কারের ঘোষণা দেয়। ওইদিন তারা জানায়, গত ৮ মার্চ তারা এই ভ্যাকসিন আবিষ্কারের কাজ শুরু করেন। ৫ অক্টোবর গ্লোব জানায়, তারা সফলভাবে প্রাণীদেহে তাদের ট্রায়াল সম্পন্ন করেছেন। এখন মানব দেহে ট্রায়ালে যাওয়ার জন্য প্রস্তুত।

মেডিভয়েসের জনপ্রিয় ভিডিও কন্টেন্টগুলো দেখতে সাবস্ক্রাইব করুন MedivoiceBD ইউটিউব চ্যানেল। আপনার মতামত/লেখা পাঠান [email protected] এ।
  ঘটনা প্রবাহ : ভ্যাকসিন
  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি
জাতীয় ওষুধনীতি-২০১৬’ এর খসড়ার নীতিগত অনুমোদন

নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি