১৪ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০২:২২ পিএম

টিকার নিবন্ধন সম্পন্ন হলে ২৭ সেপ্টেম্বরের পর খোলা যাবে বিশ্ববিদ্যালয়

টিকার নিবন্ধন সম্পন্ন হলে ২৭ সেপ্টেম্বরের পর খোলা যাবে বিশ্ববিদ্যালয়

মেডিভয়েস রিপোর্ট: যেসব বিশ্ববিদ্যালয় ২৭ সেপ্টেম্বরের মধ্যে সব শিক্ষার্থীর টিকা নিবন্ধনের কাজটি শেষ করতে পারবে, তারা চাইলে বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক কাউন্সিল ও সিন্ডিকেটের সিদ্ধান্ত সাপেক্ষে বিশ্ববিদ্যালয় খুলে দিতে পারবে। তখন বিশ্ববিদ্যালয়কেন্দ্রিক টিকা নেওয়ার কার্যক্রম নিয়ে দ্রুততম সময়ের মধ্যে নিবন্ধন করা শিক্ষার্থীদের টিকা দেওয়া হতে পারে। একই নিয়ম কলেজগুলোর স্নাতক ও স্নাতকোত্তর স্তরের শিক্ষার্থীদের ক্ষেত্রেও প্রযোজ্য হবে। 

আজ মঙ্গলবার (১৪ সেপ্টেম্বর) সকালে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশন ও বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যদের সঙ্গে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বৈঠক শেষে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের তথ্য ও জনসংযোগ কর্মকর্তা এম এ খায়ের গণমাধ্যমকে বলেন, এখন পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের যেসব শিক্ষার্থী করোনার টিকার জন্য নিবন্ধন করেননি বা করতে পারেননি, তাঁদের ২৭ সেপ্টেম্বরের মধ্যে অবশ্যই নিবন্ধনের কাজটি করতে হবে। যাঁদের জাতীয় পরিচয়পত্র (এনআইডি) নেই, তাঁদের জন্মনিবন্ধন সনদের নম্বরের ভিত্তিতে টিকা দেওয়ার ব্যবস্থা করা হবে। এ জন্য ওই সব শিক্ষার্থীকে জন্মনিবন্ধন সনদের নম্বর দ্রুততম সময়ের মধ্যে বিশ্ববিদ্যালয়ের মাধ্যমে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের (ইউজিসি) কাছে দিতে হবে। এরপর ইউজিসি তা স্বাস্থ্য বিভাগকে দেবে। তখন স্বাস্থ্য বিভাগ এর ভিত্তিতে টিকার নিবন্ধনের জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেবে।

একইসঙ্গে সুযোগ থাকলে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সহায়তায় ক্যাম্পাসে স্বাস্থ্য কেন্দ্র স্থাপন করে টিকা কার্যক্রম শুরু করতে হবে বলেও জানিয়েছেন শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের জনসংযোগ কর্মকর্তা। 

এরও আগে অক্টোবরের মাঝামাঝি সময়ে বিশ্ববিদ্যালয় খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল বিশ্ববিদ্যালয়গুলো। শিক্ষামন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকের পরই বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর অ্যাকাডেমিক কাউন্সিল এই সিদ্ধান্ত নিয়েছিল। তবে সংক্রামণ পরিস্থির উন্নতি ও লক্ষ্যমাত্রা অনুযায়ী টিকা দেওয়া সম্ভব না হওয়ায় তা বাস্তবায়ন হয়নি।

এখন পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর যেসব শিক্ষার্থী করোনার টিকার জন্য নিবন্ধন করেননি বা করতে পারেননি, তাঁদের ২৭ সেপ্টেম্বরের মধ্যে অবশ্যই নিবন্ধনের কাজটি করতে হবে। যাঁদের জাতীয় পরিচয়পত্র (এনআইডি) নেই, তাঁদের জন্মনিবন্ধন সনদের নম্বরের ভিত্তিতে টিকা দেওয়ার ব্যবস্থা করা হবে। এ জন্য ওই সব শিক্ষার্থীকে জন্মনিবন্ধন সনদের নম্বর দ্রুততম সময়ের মধ্যে বিশ্ববিদ্যালয়ের মাধ্যমে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের (ইউজিসি) কাছে দিতে হবে। এরপর ইউজিসি তা স্বাস্থ্য বিভাগকে দেবে। তখন স্বাস্থ্য বিভাগ এর ভিত্তিতে টিকার নিবন্ধনের জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেবে।

মেডিভয়েসের জনপ্রিয় ভিডিও কন্টেন্টগুলো দেখতে সাবস্ক্রাইব করুন MedivoiceBD ইউটিউব চ্যানেল। আপনার মতামত/লেখা পাঠান [email protected] এ।
  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি
জাতীয় ওষুধনীতি-২০১৬’ এর খসড়ার নীতিগত অনুমোদন

নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি