২১ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ০৩:৫৭ পিএম
সিন্ডিকেট মিটিংয়ে প্রস্তাব গৃহীত

ভাতা পাবেন ডিপ্লোমা-এমফিল কোর্সের চিকিৎসকরা

ভাতা পাবেন ডিপ্লোমা-এমফিল কোর্সের চিকিৎসকরা

মো. মনির উদ্দিন: বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় (বিএসএমএমইউ) ও এর অধিভুক্ত প্রতিষ্ঠানগুলোতে ডিপ্লোমা-এমফিল (নন-রেসিডেন্সি) কোর্সে অধ্যয়নরত চিকিৎসকরা মাসে ২০ হাজার টাকা করে ভাতা পাবেন। আজ সোমবার (২১ সেপ্টেম্বর) বিশ্ববিদ্যালয়ের সিন্ডিকেট মিটিংয়ে এ সংক্রান্ত একটি প্রস্তাব গৃহীত হয়েছে।

বিএসএমএমইউ রেজিস্ট্রার অধ্যাপক ডা. এবিএম আব্দুল হান্নান বিকাল পৌনে চারটার দিকে মেডিভয়েসকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। 

তিনি আরও বলেন, ‘ডিপ্লোমা-এমফিল-এমইডি (নন-রেসিডেন্সি) কোর্সে অধ্যয়নরত চিকিৎসকদের ভাতার বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের সুপারিশের পরিপ্রেক্ষিতে মন্ত্রণালয় থেকে বলা হয়েছিল, সিন্ডিকেটের অনুমোদন নিয়ে যেতে হবে। তো আজকে সিন্ডিকেটে অনুমোদন হয়েছে। এখন আমরা মন্ত্রণালয়ে পাঠাবো যে, অধ্যয়নরত চিকিৎসকদের ভাতার বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করুন।’ 

অধ্যাপক এবিএম আব্দুল হান্নান বলেন, ঐতিহাসিক এ সিদ্ধান্তের ফলে নয় শতাধিক চিকিৎসক এ সুবিধার আওতায় আসবেন। 

কবে থেকে এ ভাতা চালু হবে জানতে চাইলে অধ্যাপক এবিএম আব্দুল হান্নান বলেন, ‘ভবিষ্যতে যারা কোর্সে চান্স পাবেন, তারা তো পাবেনই। যারা অধ্যয়নরত আছেন তারাও সুবিধা পাবেন। তবে এ ব্যাপারে মন্ত্রণালয়ের সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত।’ 

এর আগে সকাল ১০টার দিকে বিএসএমএমইউর সিন্ডিকেট মিটিং শুরু হয়।

চিকিৎসকদের মধ্যে উচ্ছ্বাস

নন-রেসিডেন্সি কোর্সে ভাতা চালুর হওয়ার খবরে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন চিকিৎসকরা। একটি সময়োচিত সিদ্ধান্তের জন্য বিএসএমএমইউ কর্তৃপক্ষকে ধন্যবাদ জানান তারা।

বাংলাদেশ ডক্টর ফাউন্ডেশনের (বিডিএফ) ট্রাস্টি বোর্ডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও সাংগঠনিক সম্পাদক ডা. কাওসার আলম এ সংক্রান্ত এক পোস্টে বলেন, ‘ডিপ্লোমা কোর্সে অধ্যয়নরত শিক্ষার্থীরা মাসিক ভাতা পাবে। বিশ্ববিদ্যালয় সিন্ডিকেট মিটিংয়ে প্রস্তাব গৃহীত হয়েছে। ডিপ্লোমা শিক্ষার্থীদের অনেক দিনের একটি স্বপন পূরণ হচ্ছে। ধন্যবাদ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনকে।’

এই পোস্টের কমেন্ট সেকশনে ডা. খায়রুন নিসা অন্নি বলেন, ‘আলহামদুলিল্লাহ। যারা বিনা পারিশ্রমিকে এতো বছর বেগার খেটে এসেছে, তাদের জন্যও এটা সুখের সংবাদ; এই কষ্ট অনুজদের আর করতে হবে না অন্তত।’

একই পোস্টে ইউরোলজি বিশেষজ্ঞ ও সার্জন ডা. কামরুল ইসলাম উজ্জ্বল বলেন, ‘যদিও আমি এখন স্টুডেন্ট না; কিন্তু এটা বুঝি যে, ছাত্রদের জন্য এই বৃত্তি কতটা দরকারি। ধন্যবাদ বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনকে।’

প্রসঙ্গত, রেসিডেন্সি ও এফসিপিএস কোর্সে অধ্যয়নরত চিকিৎসকদের জন্য ভাতার ব্যবস্থা থাকলেও ডিপ্লোমা কোর্সে ভাতার ব্যবস্থা ছিল না। এতে নন-রেসিডেন্সি এসব কোর্সে অধ্যয়নরতদের মানবেতর জীবন-যাপন করতে হতো, শিক্ষাকাল ছিল চরম ভোগান্তি ও উদ্বেগের।

এ অবস্থায় ডিপ্লোমা-এমফিল কোর্সের চিকিৎসকদের জন্য ভাতার উদ্যোগ নেয় বিএসএমএমইউ। এ লক্ষ্যে প্রয়োজনীয় তথ্য-উপাত্তের ভিত্তিতে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ে চিঠিও পাঠানো হয়। এতে অধ্যয়নরত চিকিৎসকদেরকে ২০ হাজার টাকা করে দেওয়ার প্রস্তাব করে বিএসএমএমইউ কর্তৃপক্ষ।

মেডিভয়েসের জনপ্রিয় ভিডিও কন্টেন্টগুলো দেখতে সাবস্ক্রাইব করুন MedivoiceBD ইউটিউব চ্যানেল। আপনার মতামত/লেখা পাঠান [email protected] এ।
  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি
জাতীয় ওষুধনীতি-২০১৬’ এর খসড়ার নীতিগত অনুমোদন

নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি