০৭ জুন, ২০২০ ১২:৫৭ পিএম

শেবাচিমের অর্থোপেডিকে চিকিৎসকসহ ১১ স্বাস্থ্যকর্মী করোনায় আক্রান্ত, বিভাগ লকডাউন

শেবাচিমের অর্থোপেডিকে চিকিৎসকসহ ১১ স্বাস্থ্যকর্মী করোনায় আক্রান্ত, বিভাগ লকডাউন

মেডিভয়েস রিপোর্ট: বরিশাল শের -ই বাংলা মেডিকেল কলেজ (শেবাচিম) হাসপাতালে করোনা উপসর্গ নিয়ে এক ঘণ্টার ব্যবধানে দুই রোগীর মৃত্যু হয়েছে। এছাড়াও অর্থোপেডিক বিভাগের চিকিৎসক-নার্সসহ ১১ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছে। এ ঘটনায় হাসপাতালের ওই বিভাগকে লকডাউন ঘোষণা করে দায়িত্বরত অন্য চিকিৎসক ও নার্সদের আইসোলেশনে পাঠানো হয়েছে।

রোববার (৭ জুন) সকালে হাসপাতালের পরিচালক মো. বাকির হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, করোনা পজিটিভ দুজন তথ্য গোপন করে ওই বিভাগে ভর্তি হওয়ায় তাঁদের সংস্পর্শে আসায় কয়েকজন চিকিৎসক ও নার্স করোনা পজিটিভ হয়েছে। এ পরিপ্রেক্ষিতে এই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

অর্থোপেডিক বিভাগের সার্জন সুদীপ হালদার জানান, করোনা পজেটিভ দুই রোগী তথ্য গোপন করে অর্থোপেডিক বিভাগে ভর্তি হন। তারা কয়েকদিন ওই বিভাগে চিকিৎসা নিয়েছেন। বিষয়টি জানতে পেরে অর্থোপেডিক বিভাগের সব ডাক্তার, নার্স ও রোগীদের নমুনা সংগ্রহ করে মেডিক্যাল কলেজের পিসিআর ল্যাবে পাঠানো হয়। শনিবার রাতে রিপোর্টে ওই বিভাগের ডাক্তার ও নার্সসহ ১১ জনের করোনা পজেটিভ হয়। এ কারণে পুরো অর্থোপেডিক বিভাগকে লকডাউন করা হয়েছে। স্বল্প পরিসরে অর্থোপেডিক বিভাগ চালু রাখতে মেডিসিন বিভাগের সাথে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। তিনি আরও জানান, তথ্য গোপন করে ভর্তি হওয়া দুই রোগীকে করোনা ওয়ার্ডে পাঠানো হয়েছে।

স্বাস্থ্য বিভাগ ও হাসপাতাল সূত্র জানায়, গত ২৮ মার্চ থেকে বরিশাল বিভাগের বিভিন্ন হাসপাতালে কোভিড-১৯ এর উপসর্গ নিয়ে ভর্তি হওয়া ৪৯ জন রোগীর মৃত্যু হয়। এর মধ্যে ৩৭ জনই বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারা যায়।

মেডিভয়েসের জনপ্রিয় ভিডিও কন্টেন্টগুলো দেখতে সাবস্ক্রাইব করুন MedivoiceBD ইউটিউব চ্যানেল। আপনার মতামত/লেখা পাঠান [email protected] এ।
  ঘটনা প্রবাহ : করোনাভাইরাস
  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি
জাতীয় ওষুধনীতি-২০১৬’ এর খসড়ার নীতিগত অনুমোদন

নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি