ডা. এম. ফরহাদ

ডা. এম. ফরহাদ

মেডিসিন ও স্নায়ুরোগ বিশেষজ্ঞ


২৬ জুন, ২০১৮ ১২:০১ পিএম

ব্যথার ঔষধে পেটে আলসার!

ব্যথার ঔষধে পেটে আলসার!

ব্যথার ওষুধ ছাড়া জীবন চলা দায়। প্রাত্যহিক জীবনে ব্যথার ওষুধ আমাদের নিত্যসঙ্গী। কিন্তু দুঃখের বিষয় এই ব্যথার ওষুধ পেটের আলসার হতে শুরু করে কিডনি বিকল পর্যন্ত করতে পারে। আজ আমরা দেখে নেই ব্যথার ওষুধ পেটের আলসার সম্পর্কিত তথ্য ও তার প্রতিকার। 

পেটে আলসার পরবর্তী কী হতে পারে?
পেটে আলসার পরবর্তী পেটের ভিতরে রক্তক্ষরণ এমনকি খাদ্যনালী ফুটা হয়ে যেতে পারে।

ব্যথার ওষুধ আলসারের ঝুঁকি কাদের বেশি?
ব্যথার ওষুধ অনেক পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার কথা বলা হলেও সবার কিন্ত এই পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া সমানভাবে হয় না। কারও বেশি হয় কারও কম হয় বা কারও হয়ই না। তাহলে দেখে নেই কাদের আলসারের ঝুঁকি বেশি।
১. যাদের বয়স ষাটোর্ধ্ব।
২. যারা আগে পেপটিক আলসার বা শরীরের এসিডে আলসারে আক্রান্ত ছিল তাদের।
৩. আগে ব্যথার ওষুধ আলসার হয়েছে যাদের।
৪. বেশি পরিমাণ ব্যথার ওষুধ বা একাধিক ব্যথার একসাথে ওষুধ সেবন করলে।
৫. ব্যথার ওষুধের সাথে স্টেরয়েড জাতীয় ঔষধ সেবন করলে।
৬. কিছু কিছু ব্যথার ওষুধ আছে যাতে আলসার খুব বেশি হয়, সেসব ঔষধ সেবন করলে।

করণীয়?
১. নিজে নিজে ব্যথার ওষুধ সেবন থেকে বিরত থাকা উচিত।
২. একাধিক বা বেশি পরিমাণে একটি ব্যথার ওষুধ সেবনে সতর্ক হওয়া উচিত।
৩. যাদের পেপটিক আলসার রয়েছে তারা ব্যথার ওষুধ সেবন থেকে বিরত থাকবেন বা চিকিৎসকের পরামর্শ নিবেন।

ব্যথার ওষুধে আলসার ঝুঁকি ও ব্যথার কারণে জীবন অতিষ্ট হলে যেমন চিকিৎসার ক্ষেত্রে আলসার ঝুঁকি কমাতে হবে আবার তেমন ব্যথাও কমাতে হবে। তাই ব্যথার ওষুধ সেবন করার আগে চিকিৎসকের পরামর্শ নেওয়া উচিত। বিশেষ করে যাদের আলসার ঝুঁকি বেশি তাদের।

দেশের চিকিৎসক ও ইঞ্জিনিয়ারের অবিস্মরণীয় সাফল্য

দেশীয় প্রযুক্তিতে কম খরচে ভেন্টিলেটর তৈরি করলো বাংলাদেশের তরুণেরা

  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
বেশিদিন ওমিপ্রাজল খেলে হাড় ক্ষয়ের ঝুঁকি বাড়ে 
কিডনি পাথরের ঝুঁকি বাড়ায় নিয়মিত অ্যান্টাসিড সেবন 

বেশিদিন ওমিপ্রাজল খেলে হাড় ক্ষয়ের ঝুঁকি বাড়ে