ঢাকা      সোমবার ১৮, জুন ২০১৮ - ৪, আষাঢ়, ১৪২৫ - হিজরী

জার্মানিতে বাংলাদেশের তসলিমার চেম্বার

মেডিভয়েস ডেস্ক:: জার্মানির আখেন শহরে ২০১৪ সালে নিজের চেম্বার চালু করেন ডা, রাকিব৷ এজন্য তাঁকে নানা চড়াই-উৎরাই পার করতে হয়েছে। প্রচুর অধ্যাবসায় ও পরিশ্রম করতে হয়েছে৷ ছোটবেলা থেকেই তাঁর লক্ষ্য ছিল চিকিৎসক হবেন৷ নির্দিষ্ট কোনো ঘটনার প্রেক্ষিতে এই আকাঙ্ক্ষা তৈরি হয়নি৷ তবে শেষ পর্যন্ত লক্ষ্যে অটল থেকেছেন৷

ঢাকা মেডিকেল কলেজ থেকে এমবিবিএস শেষে ১৯৯০ সালে স্বামীর সঙ্গে জার্মানিতে পাড়ি জমান তিনি৷ ইউরোপের দেশটিতে যাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে অবশ্য চিকিৎসক হিসেবে কাজ শুরু করতে পারেননি৷ বরং আরো তিন বছর অধ্যয়ন করতে হয়েছে স্বপ্ন পূরণের জন্য৷

বর্তমানে চিকিৎসা পেশার তিনটি ক্ষেত্রে বিশেষায়িত ডিগ্রি রয়েছে তাঁর৷ স্ত্রীরোগ বিশেষজ্ঞ তসলিমার জরুরি চিকিৎসক এবং মনোবিজ্ঞানী হিসেবে কাজ করার অভিজ্ঞতা রয়েছে।

গর্ভজাত সন্তানের চতুর্মাত্রিক ছবি দেখার সুযোগ রয়েছে ডা. রাকিবের চেম্বারে৷ বাংলাদেশি-জার্মান এই চিকিৎসকের ওপর এখন আস্থা রাখছেন অনেক জার্মান দম্পতি৷ তবে শুরুর দিকে বাংলাদেশি হিসেবে অনেকেই তাকে অগ্রাহ্য করতেন। ‘বিদেশি’ বলে তার কাছ থেকে চিকিৎসা নিতে অপারগতা প্রকাশ করতেন৷ কিন্তু নিজের দক্ষতায় এখন তাদের আস্থা অর্জনেও সক্ষম হন বাংলাদেশি এই চিকিৎসক৷

তিন সন্তানের জননী ডা. রাকিবকে কখনো কখনো দিনে শতাধিক রোগীও দেখতে হয়৷ তাঁর বড় মেয়ে মেডিসিনে অধ্যয়নের শেষ পর্যায়ে রয়েছেন৷ কাজের চাপ কমাতে শীঘ্রই মেয়েকেও চেম্বারে নিয়োগ দিতে আগ্রহী এই বাংলাদেশি-জার্মান চিকিৎসক৷

ডা. তসলিমা রাকিবের জন্য মেডিভয়েস পরিবারের পক্ষ থেকে রইল বিশেষ শুভ কামনা।

 

সংবাদটি শেয়ার করুন:

 


জীবন ও কর্ম বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিসিএস স্বাস্থ্য ক্যাডারে প্রথম হওয়া উর্মিতার গল্প

বিসিএস স্বাস্থ্য ক্যাডারে প্রথম হওয়া উর্মিতার গল্প

মেডিভয়েস রিপোর্ট: ৩৭তম বিসিএসে স্বাস্থ্য ক্যাডারে প্রথম হয়েছেন উর্মিতা দত্ত। তিনি ঢাকা মেডিকেল…

আরো সংবাদ














জনপ্রিয় বিষয় সমূহ:

দুর্যোগ অধ্যাপক সায়েন্টিস্ট রিভিউ সাক্ষাৎকার মানসিক স্বাস্থ্য মেধাবী নিউরন বিএসএমএমইউ স্বাস্থ্যমন্ত্রী ঢামেক গবেষণা ফার্মাসিউটিক্যালস স্বাস্থ্য অধিদপ্তর