২১ মে, ২০১৭ ০৪:০২ পিএম

বাংলাদেশে কোন চিকিৎসকই নিরাপদ নন

বাংলাদেশে কোন চিকিৎসকই নিরাপদ নন

ইলিয়াস হোসেন : 

রোগী মারার কথিত অভিযোগে হত্যা মামলা হলো অধ্যাপক ডা. এবিএম আবদুল্লাহ স্যারের মত আন্তর্জাতিক মানের চিকিৎসকের বিরুদ্ধে। যাচাই-বাছাই ছাড়াই রোগীর লোকেদের অভিযোগ প্রচার করলো বেশিরভাগ মিডিয়া। রোগীর লোকেরা দলবল নিয়ে হাসপাতাল ভাংচুর করলো।এসব ঘটনায় প্রমাণ হলো, বাংলাদেশে কোন চিকিৎসকই নিরাপদ নন। রোববার জাতীয় ক্যানসার গবেষণা ইন্সটিটিউট ও হাসপাতালের বিএমএ আয়োজিত মানববন্ধন পূর্ব প্রতিবাদ সভায় চিকিৎসকগণ উপরোক্ত মন্তব্য করেন। 

এসময় বক্তারা, অবিলম্বে এবিএম আব্দুল্লাহ স্যারসহ চিকিৎসকদের বিরুদ্ধে দায়ের করা মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার এবং হাসপাতালে হামলার মত সন্ত্রাসী ঘটনার জন্য নিঃশর্ত ক্ষমা চাইতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের প্রতি আহ্বান জানান। অন্যথায় সারাদেশের চিকিৎসরা একজোট হয়ে কঠোর কর্মসূচি দেয়ার হুঁশিয়ারি দেন তারা। 

 

 

প্রতিবাদ সভায় আলোচনায় অংশ নেন জাতীয় ক্যানসার গবেষণা ইন্সটিটিউট ও হাসপাতালের পরিচালক অধ্যাপক ডা. মোয়াররফ হোসেন, সার্জিক্যাল অনকোলজি বিভাগের প্রধান অধ্যাপক ডা. এ.এফ.এম আনোয়ার হোসেন, ইউরো-অনকোলজি বিভাগের প্রধান অধ্যাপক ডা. প্রাণতোষ সাহা, হেমাটো-অনকোলজি বিভাগের প্রধান অধ্যাপক ডা. মাহবুবুর রহমান,  ক্যান্সার ইপিডেমিওলজি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ও বিভাগীয় প্রধান ডা. হাবিবুল্লাহ তালুকদার রাসকিন, রেডিওথেরাপি অনকোলজি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ডা. খোরশেদ আলমসহ অনেকে। প্রতিবাদ সভা পরিচালনা করেন প্রধান আবাসিক সার্জন ডা. রনদা প্রসাদ রায়। 

 

 

পরে তারা ইন্সটিটিউট-এর সামনে মানববন্ধন করেন। এসময় বক্তারা চিকিৎসকদের নিরাপদ কর্মস্থল নিশ্চিত করতে প্রয়োজনীয় আইন প্রণয়নের জন্যে সরকারের কাছে দাবি জানান। 

 

  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত