ডা. আব্দুন নূর তূষার

ডা. আব্দুন নূর তূষার

সিইও, নাগরিক টিভি

সাবেক শিক্ষার্থী, ঢাকা মেডিকেল কলেজ

 


১৩ এপ্রিল, ২০১৭ ০৪:৩৫ পিএম

আপনার সফলতার পরিমাপক আপনি নিজেই

আপনার সফলতার পরিমাপক আপনি নিজেই

সাফল্য কি? 
এই নিয়ে হাজার রকম বই আছে।
আপনারা কি জানেন সুইমারস বডি ইল্যুশন নামে একটি প্রবনতার কথা?

যারা সাঁতরাতে যায় তারা ভাবে তারা সবাই মাইকেল ফেলপসের মতো শরীর তৈরী করবে।
বিষয়টা উল্টো।
যাদের শরীর একটু বিশেষ রকমের, অর্থাৎ একটু বড় কাঁধ ও সরু কোমর ও নিম্নভাগ হালকা, তারা সাঁতরালে যেমন চ্যাম্পিয়ন হয়, তাদের শরীর আরো সুগঠিত হয়।
তাই সাঁতার কেটে সাঁতারুর শরীর সবার হয় না যেমন একই কসমেটিক মাখলে সবাই একই রকম সুন্দর হয় না।

নামকরা বিজনেস স্কুল গুলি প্রথমে সুনামের জন্য কাজ করে। পরে সেই সুনামের কারনে একদিকে প্রচুর পয়সা নেয় আবার বেছে বেছে বেশী মেধাবীদের নেয়। ফলে এমনিতেই তাদের রেজাল্ট ভালো হয়। এরা পরে অনেক নামও করে। এরা বলে যে এদের কাছ থেকে পাশ করলে পরে অনেক বেতন পাওয়া যাবে কারন তাদের নাম বেশী। কথাটা একেবারে মিথ্যা নয়।

কিন্তু কেবল বেশী আয় হবে একারনে পড়াশোনা করাটা সঠিক সিদ্ধান্ত না। বরং ভবিষ্যতে যাদের আরো পড়ার ইচ্ছা আছে তাদের উচিত মধ্য বেতনের বিজনেস স্কুলে পড়া। (বৃ্ত্তি পেলে আলাদা )
বেশী পয়সা দিয়ে বিবিএ এমবিএ করলে পরে সেই টাকা তুলে আনার তাগিদে অার পড়াশোনা হয় না।

যারা সারাক্ষন সফলতার কথা বলেন, পজিটিভ চিন্তার কথা বিক্রি করেন, তারা সংখ্যায় অল্প। কারন সারা দুনিয়াতেই অনেক সফল এমন মানুষ কম। এরা বই লেখেন, বক্তব্য দেন, সাক্ষাতকার দেন। সবাই এদের কথায় মুগ্ধ হয়, বই বেস্ট সেলার হয়। তারা সফলতা নিয়ে যা বলেন সেটাই বেদবাক্য হয়ে যায়।

এটাও সুইমারস বডি ইল্যুশন।

কারন সফল মানুষটি অধিকাংশ সময় ভাগ্য ও সুযোগের বিষয়টি এড়িয়ে যান। কাজের সাথে খানিকটা ভাগ্য ও সুযোগ দরকার হয়।

ব্যর্থ মানুষরা যেহেতু তাদের ব্যর্থতা নিয়ে বই লেখেন না, তাই তাদের কথা কেউ জানতে পারে না। সেটাও জানা দরকার। অথচ কোথাও তারা নেই। সবখানে কেবল সফলদের বই পুস্তক, তখন লোকে এটাকে বিশ্বাস করে। ভাবে সেও সফল হলে লিখতে পারবে।

মজার বিষয় হলো, অধিকাংশ সফল লোকদের বই লেখে ব্যর্থ ভাড়াটিয়া লেখকেরা। নিজেদের বই বিক্রি হয় নাই , তাই অন্যের আত্মজীবনী লিখে দেয় । লেখার গুন একটি আলাদা বিষয়। আপনি বিল গেটস হলেই যে লিখতে পারবেন সেটা কিন্তু না।

এটাও সুইমারস বডি ইল্যুশন।

সফল লোকেরা কিন্তু মনের মধ্যে সকল ব্যর্থতার সম্ভাবনাও যাচাই করে নেন। এটার নাম ফিজিবিলিটি স্টাডি।

আমার কথা পরিস্কার। সফলতা হলো আপনি যা চান সেটা পাওয়া। একজন সুইপার যদি চায় সেরা ভ্যাকুম ক্লিনার এর মালিক হতে সেটা তার সফলতা।

একজন গাড়ীচালক যদি চায় বুগাটি ভেরন চালাতে সেটা তার সফলতা।

যার যার লক্ষ্য , তার তার প্রাপ্তি, তার তার সফলতা। কারো দেখাদেখি না, নিজের মত করে বড় হওয়া সফলতা। তাই তালগাছও সফল, বেগুন গাছও সফল , যদি ফল দেয়।

নিজের ইচ্ছায় অাপনি জটাধারী ভবঘুরে হলে , সানসিল্কের দৃষ্টিতে আপনি ব্যর্থ কিন্তু আপনি জানেন যে আপনি জটাধারীই হতে চেয়েছিলেন।

সমাজ যেভাবে বাড়ী , গাড়ী , টাকা দিয়ে সফলতার পরিমাপ করে সেটা ভুল।

আপনার সফলতার পরিমাপক আপনি নিজেই।

 

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের কৈফিয়তনামা

ভুল কাজ করে, ভুল কথা বলে সরকারকে বিব্রত করবেন না

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের কৈফিয়তনামা

ভুল কাজ করে, ভুল কথা বলে সরকারকে বিব্রত করবেন না

  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
তুমি সবার প্রফেসর আবদুল্লাহ স্যার, আমার চির লোভহীন, চির সাধারণ বাবা
পিতাকে নিয়ে ছেলে সাদি আব্দুল্লাহ’র আবেগঘন লেখা

তুমি সবার প্রফেসর আবদুল্লাহ স্যার, আমার চির লোভহীন, চির সাধারণ বাবা

বেশিদিন ওমিপ্রাজল খেলে হাড় ক্ষয়ের ঝুঁকি বাড়ে 
কিডনি পাথরের ঝুঁকি বাড়ায় নিয়মিত অ্যান্টাসিড সেবন 

বেশিদিন ওমিপ্রাজল খেলে হাড় ক্ষয়ের ঝুঁকি বাড়ে 

ডাক্তার-নার্সদের অক্লান্ত পরিশ্রমের কথা মিডিয়ায় আসে না
জাতীয় হৃদরোগ ইন্সটিটিউটের সিসিউতে ভয়ানক কয়েক ঘন্টা

ডাক্তার-নার্সদের অক্লান্ত পরিশ্রমের কথা মিডিয়ায় আসে না