২৯ জানুয়ারী, ২০১৭ ০৮:১৮ এএম
বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় সিন্ডিকেট

নার্স নিয়োগের অনিয়ম নিয়ে পাঁচ সদস্যের তদন্ত কমিটি

নার্স নিয়োগের অনিয়ম নিয়ে পাঁচ সদস্যের তদন্ত কমিটি

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে দুই’শ নার্স নিয়োগ সংক্রান্ত অনিয়মের অভিযোগ নিয়ে সাম্প্রতিক ঘটনায় একটি উচ্চপর্যায়ের তদন্ত কমিটি গঠন করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের সর্বোচ্চ নীতিনির্ধারনী ফোরাম সিন্ডিকেট। সাত সদস্য বিশিষ্ট এই তদন্ত কমিটিকে আগামী সাত কর্মদিবসের মধ্যে প্রতিবেদন জমা দেওয়ার অনুরোধ করা হয়েছে।

শনিবার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে সিন্ডিকেট বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত হয় বলে একাধিক সিন্ডিকেট সদস্য জানিয়েছেন।

সংসদ সদস্য ডা. রুস্তম আলী ফরাজীকে সভাপতি করে গঠিত তদন্ত কমিটির অন্য সদস্যরা হলেন, সংসদ সদস্য মো. মাহবুব আলী, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক মো. নজরুল ইসলাম, বাংলাদেশ মেডিকেল আ্য্যসোসিয়েশন-বিএমএ সভাপতি ডা. মোস্তফা জালাল মহীউদ্দিন, বাংলাদেশ কলেজ ফিজিশিয়ান্স এন্ড সার্জন্স সভাপতি অধ্যাপক সানোয়ার হোসেন, স্বাস্থ্য মন্ত্রনালয়ের অতিরিক্ত সচিব সরদার আবুল কালাম এবং বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি মঞ্জুরুল আহসান বুলবুল। গত ১৭ জানুয়ারি দৈনিক বাংলাদেশ প্রতিদিন পত্রিকায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে দুইশ নার্স নিয়োগের জন্য লিখিত পরীক্ষায় অনিয়ম সংক্রান্ত একটি প্রতিবেদন প্রকাশ হয়। এতে টাঙ্গাইল জেলার ৭৬ জন প্রার্থী অস্বাভাবিক বেশি নম্বর পেয়ে উত্তীর্ণ হওয়ার অভিযোগ ওঠে। তাদের গড় নম্বর শতকরা ৮০ থেকে ৯৩ ভাগ পর্যন্ত। এই ৭৬ জনের মধ্যে টাঙ্গাইলের ঘাটাইল উপজেলারই ২৩জন। বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন শীর্ষপর্যায়ের ব্যাক্তি টাঙ্গাইলের ঘাটাইল উপজেলার বাসিন্দা।

এছাড়া নার্স নিয়োগে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রচলিত নিয়োগ বিধি অনুসরণ করা হয়নি বলে অভিযোগ ওঠে। এই নার্স নিয়োগ নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন স্পষ্টত দুই ভাগ হয়ে পড়ে। বিশ্ববিদ্যালয়ের আভ্যন্তরীন বৈঠকে উপাচার্য অধ্যাপক কামরুল হাসান খান কর্তৃক প্রো-উপাচার্য অধ্যাপক এ এস এম জাকারিয়া স্বপন লাঞ্ছিত হয়েছেন বলে তিনি অভিযোগ করেন। অবশ্য উপাচার্য সে অভিযোগ অস্বীকার করেন। এ ঘটনায় বিশ্ববিদ্যালয় উত্তপ্ত হয়ে পড়ে। ক্যম্পাসে শিক্ষকদের দুই গ্রুপ মহড়া দেয়। এক পক্ষ অন্য পক্ষকে হুমকি পাল্টা হুমকি দেয়। এই অভিযোগের মধ্যে গত শুক্রবার বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন দুইশ নার্স নিয়োগের চূড়ান্ত ফলাফল প্রকাশ করে।

গতকাল বিশ্ববিদালয়ের সিন্ডিকেট বৈঠকে সাম্প্রতিক ঘটনাবলী নিয়ে আলোচনা হয়। একাধিক সিন্ডিকেট সদস্য বাংলাদেশ প্রতিদিনকে জানিয়েছেন, দুইশ নার্স নিয়োগের বিষয়টি সিন্ডিকেট বৈঠকে অনুমোদন পায়নি। তবে হাসপাতালের সেবা অব্যহত রাখার স্বার্থে অস্থায়ী ভিত্তিতে নার্স নিয়োগের সিদ্ধান্ত দেওয়া হয়েছে। পরবর্তীতে বিশ্ববিদ্যালয়ের নিয়োগ বিধি অনুযায়ী নিয়োগ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে স্থায়ীভাবে নার্স নিয়োগের কথা বলা হয়েছে সিন্ডিকেট বৈঠকে।  

সৌজন্যে : বাংলাদেশ প্রতিদিন। 

 

একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীর মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার

অধ্যাপক প্রাণ গোপালকে বিজয়ী ঘোষণা করে রোববার বিজ্ঞপ্তি: রিটার্নিং কর্মকর্তা

একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীর মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার

অধ্যাপক প্রাণ গোপালকে বিজয়ী ঘোষণা করে রোববার বিজ্ঞপ্তি: রিটার্নিং কর্মকর্তা

  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত