০১ সেপ্টেম্বর, ২০২২ ০৪:২৫ পিএম

চার সিটির ২৩ শতাংশ মানুষ উচ্চ রক্তচাপে ভুগছে: গবেষণা

চার সিটির ২৩ শতাংশ মানুষ উচ্চ রক্তচাপে ভুগছে: গবেষণা
গবেষণার ফলাফলে দেখা যায়, চার সিটি করপোরেশনের মধ্যে রংপুরের মানুষের মধ্যে উচ্চ রক্তচাপের রোগীর হার সবচেয়ে বেশি (৩৪%) এবং কুমিল্লার মানুষের মধ্যে সবচেয়ে কম।

মেডিভয়েস রিপোর্ট: রংপুরের মানুষদের মধ্যে উচ্চরক্তচাপের রোগীর হার সবচেয়ে বেশি ওঠে এসছে গবেষণায়। এছাড়াও নারায়ণগঞ্জ, কুমিল্লা, ময়মনসিংহ ও রংপুর সিটি করপোরেশন এলাকার ২৩ শতাংশ মানুষ উচ্চ রক্তচাপে ভুগছে। একই সঙ্গে এসব এলাকার আরও ১৪ শতাংশ মানুষ ভবিষ্যতে উচ্চ রক্তচাপের ঝুঁকিতে রয়েছে।

আজ বৃহস্পতিবার (১ সেপ্টেম্বর) ঢাকার র‍্যাডিসন হোটেলে সেভ দ্য চিলড্রেন ইন বাংলাদেশ ও সাউথ এশিয়া ফিল্ড এপিডেমিওলোজি এন্ড টেকনোলজি নেটওয়ার্ক (সেফটিনেট) বাংলাদেশ– এর যৌথ উদ্যোগে পরিচালিত ‘বাংলাদেশের নগর স্বাস্থ্য ব্যবস্থায় উচ্চ রক্তচাপ ও স্থূলতার ঝুঁকি’ শীর্ষক গবেষণার ফলাফলে এ তথ্য উঠে আসে।

বাংলাদেশের নগর জনস্বাস্থ্য ব্যবস্থা শক্তিশালীকরণ প্রকল্পের আওতায় পরিচালিত এই গবেষণায় প্রায় ৫০ হাজার মানুষের উচ্চ রক্তচাপ ও স্থূলতা নির্ণয় ও ঝুঁকি যাচাই করা হয়।

গবেষণার ফলাফলে দেখা যায়, দেশে মহিলাদের তুলনায় পুরুষদের উচ্চ রক্তচাপে ভোগার হার তুলনামূলক বেশি। পাশাপাশি ৩৬ শতাংশ মানুষ স্থূলতার ঝুঁকিতে রয়েছে। চার সিটি করপোরেশনের মধ্যে রংপুরের মানুষের মধ্যে উচ্চ রক্তচাপের রোগীর হার সবচেয়ে বেশি (৩৪%) এবং কুমিল্লার মানুষের মধ্যে সবচেয়ে কম।

অন্যদিকে উচ্চরক্তচাপের ঝুঁকিতে থাকা মানুষের হার সবচেয়ে বেশি কুমিল্লায় (২৩%) এবং সবচেয়ে কম ময়মনসিংহে (৬%)। খাবারে অতিরিক্ত লবণ খাওয়া, উচ্চরক্তচাপের পারিবারিক ইতিহাস এবং সংযোগ ইত্যাদিকে উচ্চরক্তচাপের কারণ হিসেবে দেখা গেছে গবেষণায়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা সিটি কর্পোরেশনের সাবেক প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা মেজর জেনারেল (অব.) ডা. মো. নাসির উদ্দিন, এমপি।

তিনি বলেন, ‘আরবান হেলথে কাজ করা খুব সহজ বিষয় নয়। এ ধরণের উন্নতমানের গবেষণা আরও বেশি দরকার যেন কোন জায়গাতে কাজ করতে হবে সেটা নিশ্চিতভাবে জানা যায়। আর সবাইকে একসাথে কাজ করতে হবে, শহরকে বসবাসযোগ্য যেমন করতে হবে, নগরবাসীর স্বাস্থ্যের খেয়ালও রাখতে হবে।’

গবেষণার ফলাফল প্রকাশের পর এ প্রকল্পের আওতায় এক বছরব্যাপী আয়োজিত ‘এপ্লাইড এপিডেমিওলোজি অ্যান্ড পাবলিক হেলথ ম্যানেজমেন্ট ফেলোশিপ কোর্স’ এর সার্টিফিকেট দেওয়া হয়। দেশের ১২টি সিটি করপোরেশনের হেলথ অফিসার ও সেভ দ্য চিলড্রেন এর নিয়োগকৃত ১৫ জন জনস্বাস্থ্য রোগতত্ত্ব বিশেষজ্ঞ এ ফেলোশিপ কোর্সে অংশ নেন।

স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের সার্বিক তত্ত্বাবধানে ও ইউ এস সেন্টারস ফর ডিজিজ কন্ট্রোল ও প্রিভেনশন (ইউ এস সিডিসি)-এর অর্থায়নে পরিচালিত বাংলাদেশের নগর জনস্বাস্থ্য ব্যবস্থা শক্তিশালীকরণ প্রকল্পটি দেশের ১২টি সিটি করপোরেশনের স্বাস্থ্য ব্যবস্থা উন্নয়নের লক্ষ্যে বাস্তবায়িত হচ্ছে। উচ্চ রক্তচাপ ও স্থূলতা শনাক্তকরণের পাশাপাশি শিশুদের অপুষ্টি যাচাই, গৃহস্থালী বর্জ্য পৃথকীকরণ, মাতৃ ও শিশু স্বাস্থ্য উন্নয়ন, ডেঙ্গু বিস্তার রোধের মতো বিভিন্ন বিষয়ে দেশের অন্যান্য সিটি করপোরেশনে জনস্বাস্থ্য বিষয়ক ক্যাম্পেইন পরিচালিত হয়।

মেডিভয়েসের জনপ্রিয় ভিডিও কন্টেন্টগুলো দেখতে সাবস্ক্রাইব করুন MedivoiceBD ইউটিউব চ্যানেল। আপনার মতামত/লেখা পাঠান [email protected] এ।
  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি
জাতীয় ওষুধনীতি-২০১৬’ এর খসড়ার নীতিগত অনুমোদন

নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি