০২ ডিসেম্বর, ২০২১ ০৯:৩৫ পিএম

তৃতীয় প্রফের সাপ্লিমেন্টারি শিক্ষার্থীদের ফাইনাল প্রফে বসা অনিশ্চিত

তৃতীয় প্রফের সাপ্লিমেন্টারি শিক্ষার্থীদের ফাইনাল প্রফে বসা অনিশ্চিত
তৃতীয় প্রফের সাপ্লিমেন্টারি শিক্ষার্থীদের ফাইনাল প্রফে বসা অনিশ্চিত। ছবি: প্রতীকী

মেডিভয়েস রিপোর্ট: ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) অধীনের মেডিকেল কলেজগুলোর এমবিবিএস তৃতীয় প্রফের সাপ্লিমেন্টারি পরীক্ষার ফল প্রকাশিত না হওয়ায় ২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষের অসংখ্য শিক্ষার্থীর ফাইনাল প্রফে বসা অনিশ্চিয়তায় পড়েছে।

ঢাবি মেডিসিন অনুষদ সূত্রে জানা গেছে, ফাইনাল প্রফের পরীক্ষাটি আগামী ২ জানুয়ারিতে শুরু হবে। পরীক্ষায় অংশগ্রহণে শিক্ষার্থীদের ফরম পূরণের শেষ সময় আগামী ১১ ডিসেম্বর। পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য এর আগেই শিক্ষার্থীদের পূর্বের সকল বিষয়, ওয়ার্ড, ব্লক ও এসেসমেন্টে উত্তীর্ণ হতে হবে। এ অবস্থায় ২০১৫-১৬ শিক্ষাবার্ষের তৃতীয় প্রফেশনাল পরীক্ষায় এক বা একাধিক বিষয়ে রি-সাপ্লিমেন্টারির ফলাফল না হওয়ায় তাদের চূড়ান্ত পেশাগত পরীক্ষায় বসা অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক শিক্ষার্থী মেডিভয়েসকে বলেন, ‘আমি ২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষের একজন শিক্ষার্থী। এমবিবিএস তৃতীয় প্রফের এক বিষেয়ে সাপ্লিমেন্টারি থাকার কারণে সর্বশেষ ফাইনাল প্রফে আমিসহ অনেকে বসতে পারিনি। নিয়ম অনুযায়ী, তৃতীয় প্রফ পাস করলে আমাদের আগামী ২ জানুয়ারি শুরু হতে যাওয়া ২০১৫-১৬ ব্যাচের ফাইনাল প্রফের সাপ্লিমেন্টারিতে বসার কথা। আমাদের ফাইনাল প্রফে বসার ক্লিয়ারেন্সও রয়েছে। শুধামাত্র তৃতীয় প্রফের ফলাফলের জন্য আমরা আটকে আছি। গত ৬ নভেম্বর আমাদের পরীক্ষা শেষ হলেও এখনও ফলাফল প্রকাশ হয়নি। এদিকে ফরম ফিলাপের শেষ সময় ১১ ডিসেম্বর।’

ঢাবি মেডিসিন অনুষদের ডিন ও পরীক্ষা নিয়ন্ত্রণ কমিটির চেয়ারম্যান ডা. শাহরিয়ার নবীর কাছে এ সংক্রান্ত এক আবেদনে শিক্ষার্থীরা বলেন, ‘আমরা ২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষের বিভিন্ন মেডিকেলের শিক্ষার্থী। আমারা ফাইনাল পেশাগত পরীক্ষার জন্য ওয়ার্ড, ব্লক এবং এসসমেন্টে উর্ত্তীণ হয়ে আছি। কিন্তু তৃতীয় পেশাগত পরীক্ষার এক বা দুই বিষয়ে রি-সাপ্লিমেন্টারির ফলাফলের জন্য ফাইনাল পেশাগত পরীক্ষায় বসতে পারছি না।’

এ অবস্থায় করোনায় ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার কথা উল্লেখ করে অতি দ্রুত তৃতীয় প্রফের পরীক্ষার ফল প্রকাশ করে তাদের পরীক্ষায় বসার সুযোগ করে দেওয়ার অনুরোধ জানিয়েছে শিক্ষার্থীরা। 

বিশেষ বিবেচনায় অংশগ্রহণের সুযোগ দানের আশ্বাস 

জানতে চাইলে ঢাবি মেডিসিন অনুষদের ডিন মেডিভয়েসকে বলেন, ‘ফলাফলের বিষয়ে এখনই সুনিশ্চিতভাবে বলা যাচ্ছে না। এখনও অনেক প্রতিষ্ঠানের মার্কশিট হাতে এসে পৌঁছায়নি। এগুলো হাতে আসার পর ফলাফলের বিষয়ে বলতে পারবো। আমরা এই মাসের মধ্যেই ফল প্রকাশের চেষ্টা করবো।’

শিক্ষার্থীদের দাবির বিষয়ে তিনি বলেন, ‘মেডিকেলের নিয়ম অনুযায়ী তাঁরা ফাইনাল প্রফে বসতে পারবে না। কারণ পরীক্ষার ফলাফলের আগে তাদের ব্লক পোস্টিং হওয়ার কথা না। যদিও তারা দাবি করছে, তাদের ব্লক পোস্টিং হয়েছে। মেডিকেল কলেজগুলো তা করতে দেওয়ার কথা না। আমি ঢাকা মেডিকেল কর্তৃপক্ষের কাছে জানতে চেয়েছি, তারা ব্লক পোস্টিং দেয়নি বলে জানিয়েছেন।’

পরীক্ষায় অংশগ্রহণের সুযোগের বিষয়ে তিনি বলেন, ‘এখন পর্যন্ত সিদ্ধান্ত অনুযায়ী তারা ২ জানুয়ারির পরীক্ষায় অংশ নিতে পারবেন না। তার পরও ফ্যাকাল্টিদের সঙ্গে বসবো, সবাই যদি বিবেচনা করে এবং বলে সুযোগ দেওয়া হোক, তাহলে দেওয়া হবে।’

যদি বিশেষ বিবেচনায় তাদের অংশগ্রহণের সুযোগ দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়, তবে শিক্ষার্থীরা বিলম্ব ফি দিয়ে ফরম ফিলাপ করতে পারবেন বলেও জানিয়েছেন ঢাবির মেডিসিন অনুষদের ডিন। 

মেডিভয়েসের জনপ্রিয় ভিডিও কন্টেন্টগুলো দেখতে সাবস্ক্রাইব করুন MedivoiceBD ইউটিউব চ্যানেল। আপনার মতামত/লেখা পাঠান [email protected] এ।
  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি
জাতীয় ওষুধনীতি-২০১৬’ এর খসড়ার নীতিগত অনুমোদন

নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি