০৩ অগাস্ট, ২০২১ ০৯:২২ পিএম

করোনা: ৩৬ ঘণ্টার ব্যবধানে হারালাম চার চিকিৎসক

করোনা: ৩৬ ঘণ্টার ব্যবধানে হারালাম চার চিকিৎসক
ডা. শামীম আহমেদ, ডা. শফিউদ্দিন পাতা ও অধ্যাপক ডা. নাজিব মোহাম্মদ।

মেডিভয়েস রিপোর্ট: প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ৩৬ ঘণ্টার ব্যবধানে প্রাণ হারিয়েছেন চারজন চিকিৎসক। গত জুলাই মাসে করোনায় মারা গেছেন ১৫ জন চিকিৎসক। এ পর্যন্ত করোনা ও উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন মোট ১৭৭ জন চিকিৎসক। মারা যাওয়া ১৭৭ জনের মধ্যে করোনা পজিটিভ ছিলেন ১৭০ জন এবং করোনা উপসর্গে সাতজনের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া করোনায় মোট তিনজন ডেন্টাল সার্জন মারা গেছেন।

সর্বশেষ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেছেন ঢাকা মেডিকেল কলেজের রেডিওলজি ও ইমেজিং বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ডা. শামীম আহমেদ। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৫০ বছর। ডা. শামীম আহমেদ ছিলেন চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজের (চমেক) ৩২তম ব্যাচের শিক্ষার্থী। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, এক ছেলে-এক মেয়ে, পরিবার-পরিজন, বন্ধু-স্বজনসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।

চলে গেলেন ডা. শফিউদ্দিন পাতা

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে না ফেরার দেশে চলে গেলেন বরিশাল জেলার সাবেক সিভিল সার্জন ডা. এএফএম শফিউদ্দিন পাতা। আজ মঙ্গলবার (৩ আগস্ট) রাজধানীর শেখ রাসেল গ্যাস্ট্রোলিভার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন তিনি। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬২ বছর। তিনি ছিলেন রাজশাহী মেডিকেল কলেজের প্রাক্তন শিক্ষার্থী। ডা. শফিউদ্দিন পাতা ব্যক্তিজীবনে ছিলেন সৎ ও নিষ্ঠাবান।

করোনায় চলে গেলেন ডা. জাকিয়া শাফি

গত ২ আগস্ট বিকেলে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে রাজধানীর সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেছেন টাঙ্গাইল জেলা টাঙ্গাইল জেলার শেখ হাসিনা মেডিকেল কলেজের স্ত্রী ও প্রসূতিবিদ্যা বিভাগের কনসালটেন্ট ডা. জাকিয়া রশিদ শাফি। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৪৬ বছর। ডা. জাকিয়া শাফি ছিলেন ঢাকা মেডিকেল কলেজের ৫০তম ব্যাচের শিক্ষার্থী।

করোনায় গণস্বাস্থ্যের ডা. নাজিব মোহাম্মদের মৃত্যু

এর আগে ২ আগস্ট সকাল সাড়ে ১১টার দিকে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে বাংলাদেশ স্পেশালাইজড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন গণস্বাস্থ্য নগর হাসপাতাল ও গণস্বাস্থ্য ডায়ালাইসিস সেন্টারের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রের (আইসিইউ) বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ডা. নাজিব মোহাম্মদ। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৬৬ বছর।

ডা. নাজিব মোহাম্মদ ছিলেন বাংলাদেশের আইসিইউ চিকিৎসা ব্যবস্থার অন্যতম একজন প্রথিতযশা চিকিৎসক। গণস্বাস্থ্য নগর হাসপাতালের আইসিইউ প্রতিষ্ঠায় ও তার ভূমিকা অনস্বীকার্য। রাজধানীর স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ (এসএসএমসি) দ্বিতীয় ব্যাচের শিক্ষার্থী ছিলেন ডা. নাজিব মোহাম্মদ।

মেডিভয়েসের জনপ্রিয় ভিডিও কন্টেন্টগুলো দেখতে সাবস্ক্রাইব করুন MedivoiceBD ইউটিউব চ্যানেল। আপনার মতামত/লেখা পাঠান [email protected] এ।
  ঘটনা প্রবাহ : চিকিৎসকের মৃত্যু
  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি
জাতীয় ওষুধনীতি-২০১৬’ এর খসড়ার নীতিগত অনুমোদন

নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি