ঢাকা      সোমবার ১৯, অগাস্ট ২০১৯ - ৩, ভাদ্র, ১৪২৬ - হিজরী

শিশুর প্রস্রাবের সমস্যা

 

শিশুদের প্রস্রাবের সমস্যা সচরাচর দেখা যায়। যৌনাঙ্গের যেকোনো অস্বাভাবিকতা বা অস্পষ্টতা জন্ম থেকে বা বেশির ভাগ ক্ষেত্রে জন্মের পরে দেখা যায়।

এতে মাতাপিতা উদ্বিগ্ন থাকেন এবং কখনো কখনো না বুঝে অপচিকিৎসার আশ্রয় নেন। (আইনগতভাবে সঠিক ব্যক্তি দ্বারা সঠিক কাজ না করা) এবং শিশুর যত্ন বাধাগ্রস্ত হয়। ছেলেশিশুদের প্রস্রাবের সমস্যা মেয়েশিশুদের চেয়ে বেশি ও জটিল।

উপসর্গ

০১.জন্মের পর থেকে ছেলেশিশুর প্রস্রাবে কষ্ট, পুরুষাঙ্গের অগ্রভাগ ফুলে যাওয়া,প্রবাহ বাধাগ্ৰস্ত হওয়া বা ফোটা ফোটা প্রস্রাব হওয়া।

০২. প্রস্রাবের সময় ব্যথা হওয়া পুরুষাঙ্গের অগ্রভাগ (ফোরস্কিন) লাল, ফুলা, ফেটে যাওয়া বারবার এই অবস্থা হলে পরবর্তী সময়ে অগ্রভাগ শক্ত হয়, সাদা হয় ও প্রস্রাব করতে কষ্ট হয়, এ অবস্থায় বারবার মূত্রথলী,মূত্রনালী,ও কিডনিতে প্রদাহ হয়।শিশুর জুর হয়, পেটে ব্যথা হয়। প্রস্রাব লাল হয়। প্রস্রাব ঘনঘন হয়। দীর্ঘদিন এ অবস্থায় কিডনি অপূরণীয় ক্ষতির আশঙ্কা থাকে।

 ০৩.পুরুষাঙ্গের অগ্রভাগ (Prepuce)  ও পুরুষাঙ্গের অগ্রভাগ (গ্লেন্সপেনিস)মূত্রনালীসহ প্ৰদাহ হয় এবং পরবর্তীকালে মূত্রনালী চিকন হয়,প্রসাব ব্ন্ধ হওয়ার উপক্রম হয় এবং কিডনিসহ মূত্রনালীর জটিলতা দেখা যায়।

০৪. অণ্ডকোষ ফুলে যাওয়াটি বড়/ছোট/ না থাকা/ব্যথা হওয়া।

০৫.প্রস্রাবের বহিঃমুত্রনালী সঠিক জায়গায় না থাকা।

০৬.মাঝে মধ্যে অণ্ডকোষ বড় হয় / কাঁদলে বাড়ে।

০৭.মেয়েশিশুর প্রস্রাবের নালী মুখ লাল থাকা, ব্যথা হওয়া, সাদা নরম আবরণে ঢাকা থাকে। প্রস্রাব ঘন ঘন হওয়ায় তলপেটে ব্যথা ।

০৮.যৌনাঙ্গ আঘাতপ্রাপ্ত হওয়া, তাতে রক্তপড়া, ফুলে যাওয়া, প্রস্রাব বন্ধ হওয়া।

কারণঃ

*জন্মগত ক্ৰটি- হাইপোসপেডিয়াস/ইপিসপেডিয়াস/যৌনাঙ্গ অস্পষ্টতা।

* প্রদাহজনিত সমস্যা/সেপসিস, ইউটিআই।

*আঘাতজনিত: যৌনাঙ্গে আঘাত(Astidefall)

*অন্যান্য বিষয়ঃ খতনা পরবর্তী সমস্যা,মূত্রনালী/মূত্রথলী পাথর।

রোগ নির্ণয়ঃ

বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক বা সার্জারি বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের সাথে পরামর্শ,রোগের ইতিহাস ও রোগী দেখা এবং পরীক্ষার মাধ্যমে রোগ নিরূপণ করা হয়/রোগ নির্ণয়পূর্বক বিশেষজ্ঞ সার্জন এর পরামর্শ/চিকিৎসা দেবেন।

উপসংহারঃ

শিশুদের প্রস্রাবের সমস্যার কারণ বহুমাত্রিক।তাই বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের বহুমাত্রিক পরামর্শ ও চিকিৎসার মাধ্যমে এর সঠিক সমাধান পাবেন।

লেখক: ডা: মো: শফিকুল ইসলাম

এমবিবিএস, এমসিপিএস(সার্জারি)

সিনিয়র কনসালট্যান্ট(সার্জারি)

সদর হাসপাতাল, ব্রাক্ষ্মণবাড়িয়া।

সংবাদটি শেয়ার করুন:

 


স্বাস্থ্য বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

ঈদে ভোজন-পূর্ব যে বিষয়গুলোতে দৃষ্টি রাখবেন

ঈদে ভোজন-পূর্ব যে বিষয়গুলোতে দৃষ্টি রাখবেন

শুরুতেই ঈদ মোবারক। কোরবানী ঈদের সবচেয়ে আনন্দদায়ক, আকর্ষনীয় শেষ পর্ব- মাংস কাটা,…



জনপ্রিয় বিষয় সমূহ:

দুর্যোগ অধ্যাপক সায়েন্টিস্ট রিভিউ সাক্ষাৎকার মানসিক স্বাস্থ্য মেধাবী নিউরন বিএসএমএমইউ স্বাস্থ্যমন্ত্রী ঢামেক গবেষণা ফার্মাসিউটিক্যালস স্বাস্থ্য অধিদপ্তর