২৪ ডিসেম্বর, ২০২০ ১০:৪৪ পিএম

অধ্যাপক খুরশীদ আলমকে দুই বছরের চুক্তিভিত্তিক নিয়োগ

অধ্যাপক খুরশীদ আলমকে দুই বছরের চুক্তিভিত্তিক নিয়োগ
অধ্যাপক ডা. আবুল বাশার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম। ছবি: মেডিভয়েস।

মেডিভয়েস রিপোর্ট: স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল বাশার মোহাম্মদ খুরশীদ আলমকে আগামী দুই বছরের জন্য চুক্তিভিত্তিক নিয়োগ দিয়েছে সরকার। আজ বৃহস্পতিবার (২৪ ডিসেম্বর) জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের এক প্রজ্ঞাপনে তথ্য জানানো হয়েছে।

মন্ত্রণালয়ের চুক্তি ও বৈদেশিক নিয়োগ শাখার উপসচিব মো. অলিউর রহমান স্বাক্ষরিত ওই প্রজ্ঞাপনে আরও বলা হয়েছে, ‘সরকারি চাকরি আইন, ২০১৮ এর ৪৯ ধারা অনুযায়ী অধ্যাপক ডা. আবুল বাসার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম (কোড নম্বর ৩৮০১৩), মহাপরিচালক, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরকে তাঁর অবসর-উত্তর ছুটি ও তদসংশ্লিষ্ট সুবিধা স্থগিতের শর্তে আগামী ৩১ ডিসেম্বর ২০২০ অথবা যোগদানের তারিখ থেকে পরবর্তী ০২ (দুই) বছর মেয়াদে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক পদে চুক্তিভিত্তিক নিয়োগ প্রদান করা হলো।'

এ চুক্তিভিত্তিক নিয়োগের শর্তাবলি অনুমোদিত চুক্তিপত্র দ্বারা নির্ধারিত হবে উল্লেখ করে এতে আরও বলা হয়েছে, রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে জনস্বার্থে এ আদেশ জারি করা হলো। 

আদেশের অনুলিপি মন্ত্রিপরিষদ সচিব, মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ/প্রধানমন্ত্রীর মুখ্যসচিবসহ সংশ্লিষ্ট দপ্তরে পাঠানো হয়েছে।

প্রসঙ্গত, স্বাস্থ্যখাতের নানা অনিয়ম নিয়ে তীব্র বিতর্কের মুখে গত ২১ জুলাই পদত্যাগ করেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সাবেক মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদ। এর পর গত ২৩ জুলাই ঢাকা মেডিকেল কলেজের সার্জারি বিভাগের অধ্যাপক ডা. আবুল বাশার মো. খুরশিদ আলমকে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক পদে নিয়োগ দেয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। গত ২৬ জুলাই এই পদে যোগ দেন তিনি।

খুরশীদ আলমের বেড়ে ওঠা

অধ্যাপক ডা. আবুল বাশার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম ১৯৬১ সালের ৩১ ডিসেম্বর জন্মগ্রহণ করেন। তার বাড়ি কুমিল্লার চান্দিনায়। তিনি সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে এমবিবিএস সম্পন্ন করেন। পরে সার্জারিতে এফসিপিএস ও এমএস ডিগ্রি অর্জন করেন তিনি। 

বর্ণাঢ্য কর্মজীবন

অধ্যাপক ডা. আবুল বাসার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম ১৯৮৪ সনের ২২ নভেম্বর ইন সার্ভিস ট্রেনিংয়ের আওতায় সহকারী সার্জন হিসেবে স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজে যোগদান করেন। একই বছর বিসিএসের মাধ্যমে সরকারি চাকরিতে যোগ দেন। ১৯৮৬ সালের চার অক্টোবর মহেশখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে সহকারী সার্জন হিসেবে কাজ শুরু করেন। পরবর্তীতে মোহাম্মদপুর ইউনিয়ন সাব সেন্টার ও ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে সহকারী সার্জন হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন তিনি।

ঢাকা মেডিকেল কলেজের সার্জারি বিভাগের চেয়ারম্যান হওয়ার আগে তিনি কুমিল্লা মেডিকেলের সার্জারি বিভাগের প্রধান ছিলেন। খুরশীদ আলম কিছুদিন বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজেও কর্মরত ছিলেন। 

এছাড়াও তিনি সহকারী সার্জন হিসেবে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় (বিএসএমএমইউ), সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ (সিওমেক) এবং জাতীয় অর্থোপেডিক হাসপাতাল ও পুনর্বাসন প্রতিষ্ঠানে (নিটোর) দায়িত্ব পালন করেন। চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজের সার্জারি বিভাগের সহকারী রেজিস্ট্রার হিসেবেও কৃতিত্বের সাথে স্বাস্থ্য সেবা দিয়েছেন ডা. খুরশীদ আলম।

সার্জারি বিষয়ের জুনিয়র কনাসলট্যান্ট হিসেবে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ ও ব্রাহ্মণবাড়িয়া ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট হাসপাতালে দায়িত্ব পালন করে সিনিয়র কনসালট্যান্ট হিসেবে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজে যোগদান করেন। সহযোগী অধ্যাপক হিসেবে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ ও শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজে দায়িত্ব পালন করে এই কৃতি শিক্ষক ও চিকিৎসা কর্মকর্তা অধ্যাপক হিসেবে ২০১৬ সালে ঢাকা মেডিকেল কলেজে যোগদান করেন।

সফল সংস্কৃতি অঙ্গনেও

সংস্কৃতি অঙ্গনেও রয়েছে তার অবাধবিচরণ। অধ্যাপক ডা. খুরশীদ আলম বাংলাদেশ বেতারের একজন তালিকাভুক্ত রবীন্দ্রসঙ্গীত শিল্পী। প্রয়াত সঙ্গীতজ্ঞ ওয়াহিদুল হকের প্রিয় শিষ্যদের একজন তিনি। এককালে ওয়াহিদুল হকের ছায়াসঙ্গী ছিলেন অধ্যাপক ডা. খুরশীদ আলম। এছাড়া জাতীয় রবীন্দ্রসঙ্গীত সম্মিলন পরিষদ কুমিল্লা শাখার প্রশিক্ষক ছিলেন তিনি। পরে সভাপতির দায়িত্বও পালন করেছেন।

মেডিভয়েসের জনপ্রিয় ভিডিও কন্টেন্টগুলো দেখতে সাবস্ক্রাইব করুন MedivoiceBD ইউটিউব চ্যানেল। আপনার মতামত/লেখা পাঠান [email protected] এ।
  ঘটনা প্রবাহ : স্বাস্থ্য অধিদপ্তর
  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি
জাতীয় ওষুধনীতি-২০১৬’ এর খসড়ার নীতিগত অনুমোদন

নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি