০১ মে, ২০২০ ০৩:০৮ এএম
মেডিভয়েসকে বিশেষ সাক্ষাৎকার

চিকিৎসকরা সাহসী ভূমিকা পালন করছেন: আব্দুস সালাম মুর্শেদী এমপি

চিকিৎসকরা সাহসী ভূমিকা পালন করছেন: আব্দুস সালাম মুর্শেদী এমপি
সাবেক ফুটবল তারকা আব্দুস সালাম মুর্শেদী। ফাইল ছবি

করোনাভাইরাসের কারণে পুরো বিশ্ব স্থবির। থমকে পড়েছে মানুষের স্বাভাবিক জীবনযাত্রা। প্রতিদিনই হাজার হাজার মানুষ আক্রান্ত ও মৃত্যুবরণ করছেন। মহামারী আকার ধারণ করা ছোঁয়াছে ভাইরাসের সংক্রমণ নিয়ে মেডিভয়েসকে নিজের ভাবনার কথা বলেছেন বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের সিনিয়র সহসভাপতি সাবেক ফুটবল তারকা আব্দুস সালাম মুর্শেদী এমপি। সাক্ষাৎকারটি নিয়েছেন আব্দুল্লাহ আল-মামুন

মেডিভয়েস: করোনার সংক্রমণ এড়াতে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ঘরে থাকার পাশাপাশি সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার পরামর্শ দিচ্ছে। আপনি একজন সাবেক তারকা ফুটবলার হিসেবে কিছু বলুন।

আব্দুস সালাম মুর্শেদী: বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বা আমাদের সরকার প্রধান যেভাবে নির্দেশনা দিচ্ছে সেভাবে মেনে চলা উচিত। নাগরিক হিসেবে প্রত্যেকে যার যার সঠিক দায়িত্ব এবং নির্দেশনা অনুসরণ করা উচিত। তাহলে আমি নিজে হয়তো ভালো আছি আরেকজন খারাপ আছে, কিন্তু আমি যেন আরেকজনের ক্ষতির কারণ না হই। প্রত্যেকেই যদি সাবধানতা অবলম্বন করি তাহলে আমরা এই ভয়াবহ বৈশ্বিক পরিস্থিতি থেকে আল্লাহর রহমতে হয়তো পরিত্রাণ পাব। 

মেডিভয়েস: ডাক্তার ও স্বাস্থ্যকর্মীরা করোনায় আক্রান্ত রোগীর চিকিৎসার জন্য দিনরাত পরিশ্রম করছেন। তাদের মধ্যে অনেকে মারা যাচ্ছেন, ১০ শতাংশ স্বাস্থ্যকর্মী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। জীবনের ঝুঁকি নিয়ে তাদের এ লড়াই করে যাওয়া নিয়ে যদি কিছু বলেন।

আব্দুস সালাম মুর্শেদী: আমি মনে করি চিকিৎসক যারা তারা কিন্তু জীবনের শুরুতেই নিজের প্রফেশনটা বেছে নিয়েছেন। তারা সেবা দেবেন এটাই বাস্তবতা, স্বাভাবিক। তবে এটা একটা এক্সট্রা অর্ডিনারি টাইম। তারা যেহেতু জীবনের ঝুঁকি নিয়ে কাজ করছেন সে কারণে প্রধানমন্ত্রী তাদের প্রত্যেকের জন্য একটা বীমার ব্যবস্থাও করেছেন।

তাছাড়া স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় চিকিৎসকদের জন্য আলাদা কিছু সুযোগ-সুবিধার ব্যবস্থা করছে। বিভিন্ন জায়গায় অনেক ধরনের অভিযোগ আছে, থাকবে। তারপরও আমি মনে করি এই মুহূর্তে তারা যেভাবে সাহসী ভূমিকা রাখছেন সেজন্য তাদের ধন্যবাদ জানাতেই চাই। আমাদের সীমাবদ্ধতার মধ্যেও তারা যেভাবে রোগীদের সেবা দিয়ে যাচ্ছেন সেজন্য ডাক্তার সমাজকে আমি অভিনন্দন জানাই।

আরও ধন্যবাদ জানাই আমাদের নেতাকর্মী, আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের। ধন্যবাদ জানাই, সংবাদকর্মীদের যারা এই ছোঁয়াছে ভাইরাসের মধ্যেও জীবনকে ঝুঁকিতে ফেলে প্রতিনিয়ত সংবাদ সংগ্রহ করে দেশের পুরো চিত্রটা মিডিয়ার মাধ্যমে আমাদের সামনে তুলে ধরছেন তাদের।

মেডিভয়েস: আপনি একজন সংসদ সদস্য হিসেবে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ এড়াতে এই মুহূর্তে কী করছেন, দেশবাসীর উদ্দেশে কী পরামর্শ দেবেন?

আব্দুস সালাম মুর্শেদী: আমি নিজে এবং পরিবারকে সেভ রাখার সর্বোচ্চ চেষ্টা করছি। বারবার হাত ধুচ্ছি, প্রয়োজন ছাড়া ঘর থেকে বের হচ্ছি না। প্রয়োজনে বের হলেও মাস্ক ব্যবহার করছি। স্বাস্থ্যবিধি সম্পূর্ন মেনে চলার চেষ্টা করছি। আমার সঙ্গে যারা আমার অফিসে কাজ করছেন তাদেরকেও সেভ রাখার চেষ্টা চলছে।

দেশবাসীর উদ্দেশে আমার পরমার্শ থাকবে প্রয়োজন ছাড়া বের হবেন না। আমিও বের হচ্ছি না। যথা সম্ভব ঘরে থাকুন, আপনি করোনার সংক্রমণ থেকে সেভ থাকনু, আপনি সেভ তো আপনার পরিবার সেভ। আর সুযোগ থাকলে প্রতিবেশি, অসহায় ও গরীব মানুষকে খাদ্যসামগ্রী দিয়ে হেল্প করুন। আমাদের খেয়াল রাখতে হবে এই সংকটে খাবারের জন্য কোনো মানুষ যেন সমস্যায় না পরে। যার যতটুকু সম্ভব সহযোগিতা করেন, দয়া করে সহযোগিতা করেন।

মেডিভয়েস: খুলনা-৪ আসনের সংসদ সদস্য হিসেবে এলাকার জনগণের জন্য এই সংকট মুহূর্তে কী কী করার পদক্ষেপ নিয়েছেন?

আব্দুস সালাম মুর্শেদী: আমার সংসদীয় এলাকার জন্য প্রধানমন্ত্রী এই সংকট মোকাবেলায় গরিব অসহায় মানুষদের জন্য যে প্রণোদনা দিয়েছেন তা যেন সঠিকভাবে দেয়া যায় সেজন্য কঠিনভাবে মনিটরিং করছি। আমি নিজেও ব্যক্তিগভাবে কিছু ত্রাণ দিচ্ছি। এ পর্যন্ত প্রায় ১৫ হাজার পরিবারকে সহযোগিতা দিয়েছি এবং সেটা এখনও চালু আছে। আশা করছি পুরো রোজার মাস চালু রাখতে পারব।

মেডিভয়েস: করোনাভাইরাসের কারণে ঘরোয়া ও আন্তর্জাতিক সব খেলাই বন্ধ। খেলোয়াড়রা এখন গৃহবন্দি। এমন পরিস্থিতিতে খেলোয়াড়দের ফিটনেস ধরে রাখা কতটা চ্যালেঞ্জিং বলে মনে করেন?

আব্দুস সালাম মুর্শেদী: আসলেই চ্যালেঞ্জিং। এখন ঘরের আঙিনায় যতটুকু সম্ভব জিম বা প্রাকটিস করার মাধ্যমে তাদের নিজেদের ফিট রাখতে হবে। তবে এখন খেলার চেয়ে জীবন নিয়েই বেশি ভাবতে হচ্ছে। জীবনই যেখানে ঝুঁকির মধ্যে সেখানে খেলা নিয়ে ভাবার সময় কই। এই পরিস্থিতি দীর্ঘায়িত হলে সব দেশের ক্রীড়া ফেডারেশনগুলোই বড় ধরনের মন্দায় পড়বে। দোয়া করি এ সংকট যেন দ্রুত শেষ হয়। আল্লাহ আমাদের ওপর রহম করুন।

[আগামীকাল পড়ুন: জাতীয় ক্রিকেটার মোসাদ্দেক হোসেন সৈকতের সাক্ষাৎকার]

আরও পড়ুন

►চিকিৎসকরা অসুস্থ হলে আমাদের পরিস্থিতি আরও খারাপ হবে: জেসি

►চিকিৎসক স্বাস্থ্যকর্মীদের জন্য বিশেষ ব্যবস্থার অনুরোধ জানাই: শাহরিয়ার নাফীস

►চিকিৎসকদের প্রতি আমাদের শ্রদ্ধা আরও বেড়ে গেছে: আকরাম খান

►চিকিৎসকরাই এখন সবচেয়ে বড় যুদ্ধটা করছেন: হাবিবুল বাশার সুমন

চিকিৎসক স্বাস্থ্যকর্মীরা এই দুঃসময়ে খুব ভালো কাজ করছেন: নাঈমুর রহমান দূর্জয়

►চিকিৎসকরা মৃত্যুঝুঁকি জেনেও অসাধারণ কাজ করছেন: ক্রিকেটার আশরাফুল

►এই মুহূর্তে সবচেয়ে বড় যুদ্ধটা ডাক্তাররাই করছেন: তাসকিন আহমেদ

  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
আন্তর্জাতিক এওয়ার্ড পেলেন রাজশাহী মেডিকেলের নার্স
জীবাণু সংক্রমণ প্রতিরোধে অসামান্য অর্জন

আন্তর্জাতিক এওয়ার্ড পেলেন রাজশাহী মেডিকেলের নার্স