০৭ এপ্রিল, ২০২০ ০২:২২ পিএম

লকডাউন অমান্য করায় নিউজিল্যান্ডের স্বাস্থ্যমন্ত্রীকে বহিষ্কার

লকডাউন অমান্য করায় নিউজিল্যান্ডের স্বাস্থ্যমন্ত্রীকে বহিষ্কার

মেডিভয়েস ডেস্ক: বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে দেশজুড়ে লকডাউন ঘোষণা করেছে নিউজিল্যান্ড সরকার। কিন্তু দেশটির স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডেভিড ক্লার্ক স্বয়ং লকডাউন অমান্য করে গাড়ি চালিয়ে সপরিবারে সমুদ্রতটে বেড়াতে যাওয়ায় তাকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (৭ এপ্রিল) ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম দ্যা গার্ডিয়ানের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা গেছে।

জানা গেছে, করোনাভাইরাস রুখতে দেশজুড়ে লকডাউনের ঘোষণা দেয়ার পর সম্প্রতি এই নিয়ম ভেঙে সমুদ্র সৈকতে পরিবার নিয়ে বেড়াতে গিয়েছিলেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডেভিড ক্লার্ক। এর আগে আইসোলেশনের নিয়ম ভেঙে মাউন্টেন বাইকিংয়ে গিয়েছিলেন তিনি। এই অপরাধে তাকে বরখাস্ত করা উচিত বলে জানিয়েছেন নিউ জিল্যান্ডের প্রধানন্ত্রী জ্যাসিন্ডা আরডেন। কিন্তু এই আপত্‍কালীন পরিস্থিতিতে তাকে পুরোপুরি বরখাস্ত না করে সহকারী অর্থমন্ত্রী পদ দেওয়া হয়েছে। এবং কেবিনেটের র‌্যাঙ্কিংয়ে নিচের দিকে নামিয়ে দেয়া হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী জাসিন্ডা আর্ডেন বলেছেন, তিনি বোকার মতো কাজ করেছেন। এটা অপরাধ। কিন্তু পরিস্থিতি বিবেচনায় তাকে বরখাস্ত না করে পদাবনতি দেওয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, সাধারণ সময় হলে এমন কাজের জন্য স্বাস্থ্যমন্ত্রীকে বরখাস্ত করা হতো। তবে এখন সেটি করলে দেশের করোনা মহামারি মোকাবিলায় নেয়া পরিকল্পনা বাস্তবায়ন বাধাগ্রস্ত হতে পারে। তাই কিছুটা লঘু শাস্তি দেয়া হয়েছে। ক্লার্ক এখন থেকে সহযোগী অর্থমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করবেন।

এ ঘটনায় ভুল স্বীকার করে নিজেকে ‘ইডিয়ট’ বলে মন্তব্য করেছেন ডেভিড ক্লার্ক। নিজেকে রীতিমতো গর্দভ হিসেবে স্বীকার করেছেন তিনি। বলেছেন, নির্দেশনা অমান্য করে তিনি সম্প্রতি মাউন্টেইন বাইকিংয়ে (পাহাড়ে মোটরসাইকেল চালনা) গিয়েছিলেন। এছাড়া, পরিবার নিয়ে সমুদ্র সৈকতে প্রায় ২০ কিলোমিটার ঘুরেও বেড়িছেন।

লকডাউন নির্দেশনা অমান্য করায় শীর্ষ নেতা-কর্মকর্তার শাস্তি পাওয়ার ঘটনা অবশ্য এটাই প্রথম নয়। কিছুদিন আগেই স্কটল্যান্ডের প্রধান মেডিকেল কর্মকর্তা ক্যাথরিন ক্যাল্ডারউড পদত্যাগ করেছেন। কারণ, লকডাউন চলাকালে এডিনবার্গ থেকে ৬৫ কিলোমিটার দূরে নিজের দ্বিতীয় বাড়িতে গিয়েছিলেন তিনি।

  ঘটনা প্রবাহ : করোনাভাইরাস
  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত