০৪ এপ্রিল, ২০২০ ০৭:৪৫ পিএম

বিএসএমএমইউতে ৯০ জন জ্বর-সর্দি ও শ্বাসকষ্টজনিত রোগীর চিকিৎসা

বিএসএমএমইউতে ৯০ জন জ্বর-সর্দি ও শ্বাসকষ্টজনিত রোগীর চিকিৎসা

মেডিভয়েস রিপোর্ট: বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) ফিভার ক্লিনিকে আজ (শনিবার) জ্বর, সর্দি, কাশি, শ্বাসকষ্টজনিত রোগে আক্রান্ত ৯০ জন রোগী সেবা গ্রহণ করেছেন। এরমধ্যে ২১ জন রোগীর করোনা ভাইরাস পরীক্ষার জন্য স্যাম্পল সংগ্রহ করে করোনা ভাইরাস ল্যাবরেটরিতে পাঠানো হয়েছে।

শনিবার (৪ এপ্রিল) সন্ধ্যায় গনমাধ্যমে পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানিয়েছেন বিএসএমএমইউয়ের জনসংযোগ কর্মকর্তা প্রশান্ত কুমার মজুমদার। 

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডা. কনক কান্তি বড়ুয়ার নির্দেশে বিশেষ ব্যবস্থাপনায় বেতার ভবনের নিচ তলায় স্থাপিত ফিভার ক্লিনিকে জ্বর, সর্দি, কাশি, শ্বাসকষ্টজনিত রোগে আক্রান্ত ৯০ জন রোগী আজ (শনিবার) সেবা গ্রহণ করেছেন। এ নিয়ে এখন পর্যন্ত ৪৩ জন রোগীর স্যাম্পল সংগ্রহ করে পরীক্ষা করা হল, যার ফলাফল জাতীয় রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান (আইইডিসিআর) কর্তৃপক্ষকে জানিয়ে দেয়া হচ্ছে।

আরো বলা হয়েছে, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের করোনা ভাইরাস ল্যাবরেটরিতে বিভিন্ন হাসপাতাল/প্রতিষ্ঠান থেকে পাঠানো স্যাম্পলসমূহও পরীক্ষা করা হচ্ছে।

প্রশান্ত কুমার মজুমদার জানিয়েছেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল বহির্বিভাগে চিকিৎসাসেবা প্রদান, ফিভার ক্লিনিকে চিকিৎসাসেবা প্রদান, জরুরি বিভাগসমূহে চিকিৎসাসেবা প্রদান এবং হেল্প লাইনে চিকিৎসাসেবা দানের পাশাপাশি  অত্র বিশ্ববিদ্যালয়ের বিশেষজ্ঞদের দ্বারা পরিচালিত “বিশেষজ্ঞ হেলথ লাইন” চালু করা হচ্ছে। আগামীকাল (৫ এপ্রিল) টেলিফোনে বিশেষজ্ঞ পরামর্শ সেবা কেন্দ্র “বিশেষজ্ঞ হেলথ লাইন” এর শুভ উদ্বোধন করবেন উপাচার্য অধ্যাপক ডা. কনক কান্তি বড়ুয়া। এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের সম্মানিত উপ-উপাচার্য (শিক্ষা) অধ্যাপক ডা. সাহানা আখতার রহমান, উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. মুহাম্মদ রফিকুল আলম, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. মোহাম্মদ আতিকুর রহমান প্রমুখ উপস্থিত থাকার কথা রয়েছে।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশে করোনাভাইরাস প্রথম শনাক্ত হয়েছে গত ৮ই মার্চ। এরপর ধীরে ধীরে সংক্রমণ বাড়তে থাকে। সবশেষ হিসাবে গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে আরো ২ জন করোনা আক্রান্ত রোগীর মৃত্যু হয়েছে। এছাড়াও নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন আরো ৯ জন। এ নিয়ে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৭০ জনে। আর মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৮।

  ঘটনা প্রবাহ : করোনাভাইরাস
  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত