২৭ মার্চ, ২০২০ ০২:৩০ পিএম

করোনা যুদ্ধে চিকিৎসকদের প্রতি স্বাচিপ সভাপতির বার্তা

করোনা যুদ্ধে চিকিৎসকদের প্রতি স্বাচিপ সভাপতির বার্তা

মেডিভয়েস রিপোর্ট: স্বাধীনতার মাসে আরেকটি বিজয়ের জন্য লড়ছে বাংলাদেশ। এ যুদ্ধ হলো বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়া প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস মোকাবেলার যুদ্ধ। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনায় এ সম্মুখযুদ্ধে সরাসরি নেতৃত্ব দিচ্ছেন দেশের চিকিৎসকরা। ইতিমধ্যেই দেশে আক্রান্তদেরকে সেবা দিতে গিয়ে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন তিন চিকিৎসকসহ পাঁচ স্বাস্থ্যকমী। এ পরিস্থিতিতে চিকিৎসকদের প্রতি বার্তা দিয়েছেন স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদের (স্বাচিপ) সভাপতি এম ইকবাল আর্সলান

শুক্রবার (২৭ মার্চ) সকালে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে এক স্ট্যাটাসে তিনি চিকিৎসকদের পাশে থাকার ঘোষণা দিয়ে এ বার্তা দিয়েছেন।

ফেসবুক বার্তায় তিনি বলেন, বর্তমান করোনা পরিস্থিতি মোকাবেলায় আপনাদের আন্তরিক প্রচেষ্টাই পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের মূল নিয়ামক। আপনাদের এই প্রচেষ্টায় আমরা আপনাদের সাথে আছি। আপনাদের অধিকার ও পেশাগত নিরাপত্তার ব্যাপারে আমরা সচেতন।

স্বাচিপ সভাপতির বার্তাটি হুবুহু মেডিভয়েস পাঠকদের উদ্দেশ্যে তুলে ধরা হলো:

সুপ্রিয় চিকিৎসক ও সহকর্মীবৃন্দ,

বর্তমানে কালের বৈশ্বিক মহামারী করোনা ভাইরাস রোগ তথা কোভিড-১৯ বাংলাদেশেও সংক্রমণ করেছে। সারাবিশ্বের স্বাস্থ্য সেবাদাতাদের মতো আপনারাও জীবনের ঝুঁকি নিয়ে রোগীর সেবা করে যাচ্ছেন। আপনাদের সকলের বিশেষ করে হাসপাতালসমূহে যারা নিরন্তর প্রত্যক্ষ সেবাদান করে চলেছেন তাদের প্রতি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে কৃতজ্ঞতা জানাই।

ইতোপূর্বে ডেঙ্গু পরিস্থিতিতে আপনারা অসম সাহসী ভূমিকা নিয়েছিলেন, মৃত্যুবরণ করেছেন চিকিৎসকসহ অন্যান্য সেবাদাতা। জাতি তাদের আত্মত্যাগ শ্রদ্ধা ভরে স্মরণ করছে ।

বর্তমান করোনা পরিস্থিতি মোকাবেলায় আপনাদের আন্তরিক প্রচেষ্টাই পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের মূল নিয়ামক। আপনাদের এই প্রচেষ্টায় আমরা আপনাদের সাথে আছি।

আপনাদের অধিকার ও পেশাগত নিরাপত্তার ব্যাপারে আমরা সচেতন। কিন্ত উদ্ভুত পরিস্থিতিতে কিছু অনাকাঙ্খিত ঘটনাও ঘটছে। সম্প্রতি স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যান মন্ত্রণালয় ও স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের বেশ কিছু নির্দেশনা দ্বারা আপনারা ক্ষুব্ধ হয়েছেন বলে আমরা অবগত হয়েছি এবং আমাদের গোচরীভূত হওয়া মাত্র প্রত্যাহার ও পরবর্তীতে বাতিলের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করেছি। চলাচলকারী চিকিৎসাকর্মীরা যাতে আইন শৃঙ্খলাবাহিনী দ্বারা হয়রানির শিকার না হন সেজন্য মাননীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী মহোদয়কে অনুরোধ করেছি তিনি ব্যবস্থা গ্রহণ করেছেন। আপনাদের যাতায়াতের জন্য প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেবার জন্য স্থানীয় প্রশাসনকে বলা হয়েছে । কভিড১৯ এর’ জন্য নির্ধারিত হাসপাতালের স্বাস্থ্যকর্মীদের স্থানীয়ভাবে থাকা-খাওয়ার ব্যবস্থা গ্রহণ করতে বলেছি।

করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ সারাবিশ্বের মতো আমাদের জন্যও একটি নতুন অভিজ্ঞতা। প্রস্তুতি নেওয়া হলেও তাতে বেশ কিছু ঘাটতি দৃশ্যমান হচ্ছে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর প্রত্যক্ষ নির্দেশনায় তা পূরণ করার প্রয়াস চলছে ।

আপনাদের কঠোর পরিশ্রম ও আত্মত্যাগের ফলে বাংলাদেশ আজ বিশ্বে স্বাস্থ্য সেবার রোল মডেল। এই অর্জন আমরা ধরে রাখার জন্য বদ্ধপরিকর। অতীতের মতো এবারও আমরা বিজয়ী হবো ইনশাআল্লাহ। আপনাদের নিরাপত্তা, সুস্বাস্থ্য ও সাফল্য কামনা করি। জয় বাংলা, জয় বঙ্গবন্ধু।

এম ইকবাল আর্সলান,
সভাপতি,
স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদ।

  ঘটনা প্রবাহ : করোনাভাইরাস
  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি
জাতীয় ওষুধনীতি-২০১৬’ এর খসড়ার নীতিগত অনুমোদন

নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি