০১ অক্টোবর, ২০১৬ ০৪:০৬ পিএম

জিকা আক্রান্ত শিশুর জন্ম

জিকা আক্রান্ত শিশুর জন্ম

জিকা ভাইরাসের সঙ্গে সম্পৃক্ত মাইক্রোসেফালি অর্থাৎ শিশুদের অপুষ্ট মাথা নিয়ে জন্ম নেয়ার দুটি ঘটনার বিষয় নিশ্চিত করেছেন থাইল্যান্ডের স্বাস্থ্য কর্মকর্তারা। দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার কোনো দেশে এই প্রথমবার জিকা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ায় অপুষ্ট মাথার শিশু জন্ম নেয়ার ঘটনা ঘটল।

এই অঞ্চলের বেশ কয়েকটি দেশে জিকা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছে। সাধারণত এডিস মশার মাধ্যমে এই ভাইরাসটি ছড়ায়। ডেঙ্গু ও চিকুনগুনিয়া রোগের কারণও এডিস মশা। গেল বছর ব্রাজিলে প্রথম জিকা ভাইরাসের সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ে।

দক্ষিণ এশিয়াজুড়েও এই ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ছে বলে সম্প্রতি খবর পাওয়া গেছে।
থাইল্যান্ডের রোগ নিয়ন্ত্রণ বিভাগের প্রাসার্ত থঙচারোয়েন বলেন, ‘সংক্ষেপে বলতে গেলে, জিকা ভাইরাসের সঙ্গে সম্পর্কিত অপুষ্ট মাথার দুটি শিশুর জন্ম হয়েছে বলে আমরা নিশ্চিত হয়েছি।’
বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (হু) বলছে, দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় জিকা ভাইরাসের সঙ্গে সম্পর্কিত মাইক্রোসেফালির ঘটনা এই প্রথম।

চলতি বছরের জানুয়ারি থেকে এ পর্যন্ত থাইল্যান্ডে ৩৫০ জন জিকা আক্রান্ত রোগীর কথা নিশ্চিত করেছিল থাইল্যান্ড।

  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
করোনা ছড়ায় উপসর্গহীন ব্যক্তিও
একদিনেই অবস্থান বদল বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার

করোনা ছড়ায় উপসর্গহীন ব্যক্তিও