০৮ ফেব্রুয়ারী, ২০২০ ০৫:৪৫ পিএম

নার্সরা স্বীকৃতিস্বরূপ ‘সেবা পদক’ পাবেন

নার্সরা স্বীকৃতিস্বরূপ ‘সেবা পদক’ পাবেন

মেডিভয়েস রিপোর্ট: হাসপাতাল ও স্বাস্থ্যসেবা প্রতিষ্ঠানে কর্মরত নার্সদের উত্তম কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ স্বাস্থ্যসেবা পদক পাবেন নার্সরা। নার্সিং ও মিডওয়াইফারি অধিদফতরের অধীন বিভিন্ন স্বাস্থ্যসেবা প্রতিষ্ঠানে কর্মরত নার্সদের এ পদক প্রদান করবে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্যসেবা বিভাগ।

আগামী ৫ থেকে ১২ মে পর্যন্ত সময়ের মধ্যে এ পুরস্কার প্রদান করা হবে। মূলত তিনটি ক্যাটাগরিতে মোট ৯ জন নার্সকে পদক ও সনদপত্র প্রদান করা হবে।নির্বাচিতদের ক্রমান্বয়ে স্বর্ণ, রৌপ্য ও ব্রোঞ্জ পদক দেয়া হবে। 

জানা যায়, এ লক্ষ্যে ‘সেবা পদক নীতিমালা ২০২০’ প্রণয়ন করেছে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্যসেবা বিভাগ (নার্সিং সেবা-২ অধিশাখা)। স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সচিব আসাদুল ইসলাম স্বাক্ষরিত এ নীতিমালা প্রকাশ করা হয়। 

নার্সদের উত্তম কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ স্বাস্থ্যসেবা পদক পূর্বে চালু থাকলেও অস্বচ্ছতার কারনে বিগত বেশ কয়েক বছর ধরে তা বন্ধ ছিলো। এ নিয়ে বিভিন্ন সময় দাবি জানিয়ে আসছে নার্সদের সংগঠন ‘বাংলাদেশ নার্সেস অ্যাসোসিয়েশন (বিএনএ)’ সহ কয়েকটি সংগঠন। 

এ ব্যাপারে কথা হয় বাংলাদেশ নার্সেস অ্যাসোসিয়েশন (বিএনএ) কেন্দ্রীয় ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ইসমত আরা পারভীন এর সাথে। মেডিভয়েসকে তিনি জানান, ‘উত্তম সেবার এই পদক আয়োজন অনেকদিন ধরে বন্ধ আছে। এই আয়োজন পূর্বেও একবার শুরু হয়েছিলো, কিন্তু অস্বচ্ছতার কারণে বন্ধ হয়ে যায়। এখন আবার শুরু হয়েছে, তবে এই আয়োজন কতটা স্বচ্ছ থাকবে, তা জানিনা। তবে নার্সরা কাজ করে যাচ্ছে। প্রকৃত দায়িত্ববান নার্সদের যেন পদক দেয়া হয়, এতেই আমরা খুশি। কিন্তু অতীতে আমরা প্রভাবিত হতে দেখেছি। যদি স্বচ্ছ হয়, তবে এটি আমাদের জন্য সম্মান এবং অনুপ্রেরণার’।  এই আয়োজনের ধারাবাহিকতা এবং প্রতিষ্ঠান ভিত্তিক পদক দেয়ার দাবি জানান তিনি। 

পুরস্কারের জন্য আবেদনকারীদের নিচের শর্তগুলো পূরণ করতে হবে :

প্রার্থীদের মোট চাকরিকাল পাঁচ বছর হতে হবে। কোনো প্রার্থীকে দ্বিতীয়বার পুরস্কারের জন্য বিবেচনা করা যাবে না। একবার পুরস্কার পাওয়ার পর পরবর্তী পাঁচ বছর পুরস্কার পাওয়ার জন্য বিবেচিত হবেন না এবং চাকরিজীবনে দুইবারের বেশি পুরস্কার পাবেন না।

নেশা ও মাদক জাতীয় দ্রব্য সেবন থেকে মুক্ত থাকতে হবে এবং বাংলাদেশ নার্সিং অ্যান্ড মিডওয়াইফারি কাউন্সিল কর্তৃক সকল প্রকার রেজিস্ট্রেশন হালনাগাদ থাকতে হবে।

কোনো প্রার্থীর বিরুদ্ধে বিভাগীয়/ফৌজদারি মামলা বিচারাধীন বা চলমান থাকলে তাকে পুরস্কার প্রদানের জন্য বিবেচনা করা যাবে না।

মূল্যায়নে কোনো প্রার্থীর মোট নম্বর ৮০ হলে তিনি পুরস্কারের জন্য বিবেচিত হবেন না। মূল্যায়নের পর একাধিক প্রার্থী একই নম্বর পেলে লটারির ভিত্তিতে প্রার্থী নির্বাচন করা হবে।
 

রাজু/মেডিভয়েস/ঢাকা

দাবি পেশাজীবী সংগঠনের, রিট পিটিশন দায়ের

‘বেসরকারি মেডিকেলের ৮২ ভাগের বোনাস ও ৬১ ভাগের বেতন হয়নি’

  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি
জাতীয় ওষুধনীতি-২০১৬’ এর খসড়ার নীতিগত অনুমোদন

নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি