২৭ অক্টোবর, ২০১৯ ১০:৫৮ এএম
আপডেট: ২৭ অক্টোবর, ২০১৯ ১১:০০ এএম

হংকংয়ে বিক্ষোভে যোগ দিয়েছেন স্বাস্থ্য কর্মকর্তারাও

হংকংয়ে বিক্ষোভে যোগ দিয়েছেন স্বাস্থ্য কর্মকর্তারাও

মেডিভয়েস ডেস্ক: বৃহত্তর গণতন্ত্র ও স্বাধীনতার দাবিতে প্রায় পাঁচ মাস ধরে চলছে হংকং বিক্ষোভ। সরকারবিরোধী এ বিক্ষোভে এবার অংশ নিয়েছেন স্বাস্থ্য বিভাগের কর্মকর্তারা। পুলিশের নিষ্ঠুরতার প্রতিবাদে তারা বিক্ষোভে অংশ নিয়েছেন বলে জানিয়েছেন। খবর রয়টার্সের।

গতকাল চীন শাসিত হংকংয়ের বিভিন্ন স্থানে স্বাস্থ্য কর্মকর্তারা বিক্ষোভ করেন। এ সময় বিক্ষোভকারীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে পেট্রোল বোমা ও পাথর নিক্ষেপ করেন। পুলিশও পাল্টা টিয়ার গ্যাস ও রাবার বুলেট ছুঁড়ে মারে।

স্টিফেন নামের এক নার্স বলেন, পুলিশ হাসপাতালে গিয়ে বিক্ষোভকারীদের খোঁজে। এই সময় তারা চিকিত্সক ও নার্সদের হুমকি দেয়। কোনো কোনো সময় পুলিশ গুলি করারও হুমকি দেয়। তবে পুলিশ এসব অভিযোগ অস্বীকার করেছে।

এদিকে, সময় যত গড়িয়েছে ততই সহিংসতা বৃদ্ধি পাচ্ছে এই বিক্ষোভে। গত রোববার (২১ অক্টোবর) রাতে বিক্ষোভকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে দেশটির প্রধান মসজিদে জলকামান নিক্ষেপ করেছে পুলিশ। এই ঘটনায় সোমবার মুসলিম সম্প্রদায়ের কাছে ক্ষমা চেয়েছেন হংকংয়ের প্রধান নির্বাহী ক্যারি লাম। পরদিন সকালে কোলোন জেলায় অবস্থিত মসজিদটি পরিস্কারের কাজ চলার সময় সেখানে পরিদর্শন করেন ক্যারি লাম। সে সময় তিনি ইসলামি নেতাদের প্রতি তার সমবেদনা প্রকাশ করতে শাল দিয়ে মাথা ঢেকে রেখেছিলেন।

প্রসঙ্গত, সাবেক বৃটিশ কলোনি হংকং গত শতকের শেষ দশকে চীনের সঙ্গে যুক্ত হয়। তবে ‘এক দেশ, দুই নীতি’ পদ্ধতির আওতায় বেশ খানিকটা স্বায়ত্ত্বশাসন ভোগ করে অঞ্চলটি। তবে সমালোচকরা অভিযোগ করেছেন, দেশটির স্বায়ত্তশাসনে চীনের প্রভাব সমপ্রতি বৃদ্ধি পাচ্ছে।

  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত