০১ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ০১:০৬ পিএম

দ্বিতীয় দিনেও উত্তাল সলিমুল্লাহ মেডিকেল

দ্বিতীয় দিনেও উত্তাল সলিমুল্লাহ মেডিকেল

মেডিভয়েস রিপোর্ট: ইন্টার্নশিপ দুই বছর করার বিষয়ে প্রস্তাবনা বাতিল চেয়ে দ্বিতীয় দিনের মতো বিক্ষোভ ও মানববন্ধন করছেন রাজধানীর স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজের শিক্ষার্থী। এতে অংশ নেন মেডিকেল কলেজের প্রথম থেকে পঞ্চম বর্ষের সকল শিক্ষার্থীরা।

রোববার (১ সেপ্টেম্বর) সকাল থেকে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত সকল ধরনের ক্লাস ও পরীক্ষা বর্জন করে শিক্ষার্থীরা এ বিক্ষোভ করতে থাকেন।

এ সময় খসড়া নীতিমালাকে অযৌক্তিক আখ্যা দিয়ে তারা বলেন, এটি বাস্তবায়িত হলে মেধাবী শিক্ষার্থীরা ডাক্তারি পেশায় আসতে নিরুৎসাহী হবেন। এতে দেশ বড় ধরনের স্বাস্থ্য ঝুঁকিতে পড়বে। বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা এ সময় ক্লাস থেকে নেমে এসে ‘দুই বছর ইন্টার্নশিপ মানি না, মানবো না’ বলে স্লোগান দিতে থাকেন।

তাদের হাতে ‘দুই বছর ইন্টার্নশিপ মানি না, মানবো না’, ‘দুই বছর ইন্টার্নশিপ প্রস্তাবনা বাতিল চাই’, ‘উপজেলায় আমাদের নিরাপত্তা দেবে কে’, মেধাবীদের চিকিৎসা খাতে নিরূৎসাহিত করবেন না’ লেখা বিভিন্ন প্লেকার্ড দেখা যায়।

আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের মধ্যে ৫ম বর্ষের (৪৪তম ব্যাচ) মো. একরামুল মেডিভয়েসকে বলেন, এই নীতিমালা বাস্তবায়িত হলে এমবিবিএস ডিগ্রি শেষ করে চিকিৎসক হিসেবে রেজিস্ট্রেশন পেতে একজন শিক্ষার্থীর কমপক্ষে সাত বছর সময় লাগবে। তাছাড়া উপজেলা পর্যায়ে কোনও কনসালটেন্ট থাকেন না, সেখানে শিক্ষার্থীদের শেখার মতো কিছু নেই। এছাড়া নারী শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তার বিষয়টিও গুরুত্বপূর্ণ।

এদিকে, শিক্ষার্থীদের এ আন্দোলনে একাত্মতা পোষণ করেছেন স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ ইন্টার্ন চিকিৎসক পরিষদ। তারা বলছে, যদি দাবি মেনে নেয়া না হয় তাহলে তারা ইন্টার্ন চিকিৎসক ধর্মঘাটের ডাক দেবে।

Add
একজন এফসিপিএস পরীক্ষা উত্তীর্ণ চিকিৎসকের অনুভুতি

পরীক্ষা প্রস্তুতির শেষের কয়েকদিন মেয়ের সাথে দেখা করতে পারিনি

  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি
জাতীয় ওষুধনীতি-২০১৬’ এর খসড়ার নীতিগত অনুমোদন

নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি