২১ এপ্রিল, ২০১৯ ০২:১৫ পিএম

খাদ্যে ভেজাল রোধের দায়িত্ব স্বরাষ্ট্র ও খাদ্য মন্ত্রণালয়ের: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

খাদ্যে ভেজাল রোধের দায়িত্ব স্বরাষ্ট্র ও খাদ্য মন্ত্রণালয়ের: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

মেডিভয়েস রিপোর্ট: খাদ্যে ভেজাল রোধ করতে না পারার জন্য খাদ্য ও স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে দুষলেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক।  রোবরাব সকালে খাদ্য মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে জাতীয় পুষ্টি সপ্তাহ উপলক্ষে এক সংবাদ সম্মেলনে এমন অভিযোগ করেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

তিনি বলেন, খাদ্যে এখনও ফরলানিন দেওয়া হচ্ছে , রঙ দেওয়া হচ্ছে। এগুলো ক্রিমিনাল অফেন্স। আর এগুলো দেখার দায়িত্ব স্বরাষ্ট্র ও খাদ্য মন্ত্রণালয়ের। কিন্তু তারা খাদ্যে ভেজাল রোধে যেসব পদক্ষেপ নিয়েছে, তা যথেষ্ট কার্যকর হচ্ছে না।  তাদের আরও করণীয় আছে।

সংবাদ সম্মেলনে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, খাদ্যে ভেজাল মেশানোর কারণে ক্যান্সার ও কিডনি রোগ বেড়েছে। খাদ্যে ভেজাল প্রতিরোধে তাই আরও কঠিন পদক্ষেপ নেওয়া উচিত। মানুষকেও সচেতন করা দরকার।

খাদ্যের কথা ভাবলে পুষ্টির কথাও ভাবুন এই প্রতিপাদ্যে সারাদেশে আগামী ২৩ থেকে ২৯ এপ্রিল পালিত হতে যাচ্ছে  পুষ্টি সপ্তাহ। এবারে ২২টি মন্ত্রণালয়কে এই পুষ্টি সপ্তাহের কার্যক্রমে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে।  এই সপ্তাহ উপলক্ষে জেলা-উপজেলা পর্যায়েও নেওয়া হয়েছে বিভিন্ন ধরনের কর্মসূচি। আর পুষ্টি সপ্তাহের উদ্বোধন হবে ২৩ এপ্রিল সকাল ৮টায় র‌্যালির মাধ্যমে।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, দেশ গড়তে হলে একটি সুস্থ জাতি দরকার। এখন দেশে দরিদ্র ও অতি দরিদ্রের মধ্যে পুষ্টিহীনতায় ভুগছে শতকার  ৮ থেকে ১০ ভাগ মানুষ। আর দারিদ্র্যসীমার নিচে শতকরা ১৫ থেকে ভাগ মানুষ পুষ্টিহীনতায় ভুগছে। অর্থাৎ দারিদ্র্যের হার কমলে পুষ্টিহীনতার হারও কমবে। সেই অনুযায়ী দেশে দারিদ্র্যের হার কমার সঙ্গে সঙ্গে পুষ্টিহীনতার হার কমে এসেছে।

  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি
জাতীয় ওষুধনীতি-২০১৬’ এর খসড়ার নীতিগত অনুমোদন

নিবন্ধনহীন ওষুধ লিখলে চিকিৎসকের শাস্তি