ঢাকা      মঙ্গলবার ২৩, এপ্রিল ২০১৯ - ৯, বৈশাখ, ১৪২৬ - হিজরী



ডা. মো. ফজলুল কবির পাভেল

সহকারী সার্জন, রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল


ক্যান্সার প্রতিরোধক এক উপাদান লাইকোপেন

লাইকোপেন একধরনের শক্তিশালী অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট। এটি নানা কাজ করে। লাইকোপেন শরীরের বিভিন্ন বিষাক্ত উপাদান নষ্ট করে। কোষগুলোকে রক্ষা করে। লাইকোপেন ক্যান্সার প্রতিরোধ করে। টম্যাটো, তরমুজ, পেঁপে এবং গাজরে প্রচুর লাইকোপেন থাকে। বলা হয়ে থাকে লাল ফল এবং সবজিতে প্রচুর এই উপাদান থাকে। যদিও অন্যান্য খাবারেও এই উপাদান পাওয়া যায়।

লাইকোপেন বিভিন্ন ক্যান্সার প্রতিরোধে সহায়তা করে। এর মধ্যে আছেঃ

১. প্রোস্টেট।

২. বৃহদন্ত্র।

৩. পাকস্থলী।

বিভিন্ন গবেষণায় এ ব্যাপারে প্রমাণ পাওয়া গেছে। লাইকোপেনে কারো কারো বমিভাব, অরুচি, পাতলা পায়খানা হতে পারে। যদিও উল্লেখযোগ্য তেমন কোন পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া এর নেই।

যেহেতু কিছু গবেষণায় উপকারী ভূমিকা পাওয়া গেছে তাই লাইকোপেন বেশি করে খাওয়া উচিত। হার্টের জন্যেও উপকারি একথাও গবেষণায় দেখা গেছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন:

 


স্বাস্থ্য বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বেশিদিন ওমিপ্রাজল খেলে হাড় ক্ষয়ের ঝুঁকি বাড়ে 

বেশিদিন ওমিপ্রাজল খেলে হাড় ক্ষয়ের ঝুঁকি বাড়ে 

পেপটিক আলসারের ওষুধ আমাদের দেশের মানুষ অনেক বেশি গ্রহণ করে।অনেকেই গ্যাস্ট্রিকের ওষুধ…

ডায়বেটিক রোগীদের রোযা ও হাইপোগ্লাইসেমিয়া

ডায়বেটিক রোগীদের রোযা ও হাইপোগ্লাইসেমিয়া

অল্প কিছুদিন পরই রমযান মাস শুরু হবে। এ মাসে প্রাপ্তবয়স্ক মুসলিমদের সূর্যোদয়…

হাইপোথাইরয়েডিজম

হাইপোথাইরয়েডিজম

চিকিৎসা ক্ষেত্রে পরীক্ষার প্রয়োজনীয়তা নিয়ে বিশাল বিতর্ক পড়লাম। ডাক্তার ছাড়া অনেকের ভাবনাই…

রোজায় জীবনযাত্রা ও খাবারের পরিবর্তন

রোজায় জীবনযাত্রা ও খাবারের পরিবর্তন

রোজা রাখতে ডায়াবেটিক রোগীদের সাধারণত কোনো নিষেধ নাই। তারা রোজা রাখলে খুব…

ব্যথার ওষুধ ও পেপটিক আলসার

ব্যথার ওষুধ ও পেপটিক আলসার

পেপটিক আলসরের অন্যতম প্রধান কারণ ব্যথার ওষুধ। কিভাবে ব্যথার ওষুধ পেপটিক আলসার…

শিশুর ভাইরাস জনিত ডায়রিয়া

শিশুর ভাইরাস জনিত ডায়রিয়া

শিশুদের ডায়রিয়া খুব পরিচিত অসুখ। শিশুদের ডায়রিয়ার অক্রান্ত হবার সম্ভাবনা বড়দের চেয়ে…



জনপ্রিয় বিষয় সমূহ:

দুর্যোগ অধ্যাপক সায়েন্টিস্ট রিভিউ সাক্ষাৎকার মানসিক স্বাস্থ্য মেধাবী নিউরন বিএসএমএমইউ স্বাস্থ্যমন্ত্রী ঢামেক গবেষণা ফার্মাসিউটিক্যালস স্বাস্থ্য অধিদপ্তর