ডা. ফাহমিদা শিরীন নীলা

ডা. ফাহমিদা শিরীন নীলা

এমবিবিএস, এফসিপিএস (গাইনী)

ফিগো ফেলো (ইতালি)

গাইনী কনসালট্যান্ট, বগুড়া।


০৯ জানুয়ারী, ২০১৯ ১০:৪২ এএম

প্রদাহের সংজ্ঞা আবিষ্কার!

প্রদাহের সংজ্ঞা আবিষ্কার!

একদা রোগী জানিতে চাহিল,এই যে ব্যবস্থাপত্রের দক্ষিণ কোণায় ইনফ্লামেশন লেখিয়াছেন, ইহার অর্থ কি?

কি বিপদ! ইহার বাংলা অর্থ তো ইহজীবনে পড়ি নাই,বলিব কিভাবে? চিন্তায় পড়িলাম। শেষ পর্যন্ত অনেক খুঁজিয়া-খাঁজিয়া উহার অর্থ আবিষ্কার করিলাম। প্রদাহ। ইনফ্লামেশন অর্থ প্রদাহ। ইহার পর রোগী জানিতে চাহিল, প্রদাহ অর্থ কি? আমি মাথা নাড়িয়া অপারগতা প্রকাশ করিলাম। রোগী বিরক্ত হইয়া কহিল, কেমন ডাক্তার আপনি? এমন কঠিন করিয়া রোগের বর্ণনা দেন!

সেইদিন হইতে আমি প্রদাহের অর্থ খুঁজিয়া বেড়াইতেছি।

দুই হাজার উনিশশত সাল আমার শুরু হইল প্রদাহ দিয়া। নতুন বছরে নতুন ভোরে উঠিয়া দেখি, আমার উভয় নাসিকার প্রদাহ প্রবল বেগে ধাইয়া আসিতেছে। আমি কোনরকমে একখানা প্রদাহনাশক ওষুধ খাইলাম। লাভের লাভ যাহা হইল, তাহা অবর্ণনীয়। আমার নাসিকাদ্বয়ের একটির ছিদ্র পুরোপুরি বন্ধ হইয়া গেল। কোন রকমে অপরটির আংশিক খোলা রহিল। এই একটি মাত্র আধা-খোলা নাসিকার কিঞ্চিৎ ফাঁক-ফোকর দিয়া কোনরকমে ফুসফুসে বাতাস প্রবাহিত হয়। ফলস্রুতিতে প্রতি নিঃশ্বাস-প্রশ্বাসের সহিত বাঁশীর শব্দ শুনিতে পাইলাম।

এ তো গেল, নাসিকার প্রদাহের কথা। ওদিকে গলার প্রদাহের কথা আর কি বলিব! প্রদাহের পর প্রদাহ আসিয়া আমাকে বুক পিঠ সহ ঝাঁকাইয়া দিয়া যায়। আমি খকর খকর খক কাশিতে কাশিতে দম বন্ধ হইয়া মরিতে মরিতে কোন রকমে বাঁচিয়া উঠি।প্রদাহের আস্ফালনে বুকে-পিঠে ব্যথা ডানা ঝাঁপটাইয়া উঠে। প্রদাহকে একা হাতে সামাল দিতে যাইয়া শরীরের তাপমাত্রা মারাত্মক বাড়িয়া গেল। এক্ষণে আমি প্রদাহের সংজ্ঞা আবিষ্কার করিলাম।

দাহের পর দাহ আসিয়া যখন আপনাকে প্রবলভাবে নাড়া দিয়া যায় তাহাই হইল প্রদাহ।

  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
তুমি সবার প্রফেসর আবদুল্লাহ স্যার, আমার চির লোভহীন, চির সাধারণ বাবা
পিতাকে নিয়ে ছেলে সাদি আব্দুল্লাহ’র আবেগঘন লেখা

তুমি সবার প্রফেসর আবদুল্লাহ স্যার, আমার চির লোভহীন, চির সাধারণ বাবা

বেশিদিন ওমিপ্রাজল খেলে হাড় ক্ষয়ের ঝুঁকি বাড়ে 
কিডনি পাথরের ঝুঁকি বাড়ায় নিয়মিত অ্যান্টাসিড সেবন 

বেশিদিন ওমিপ্রাজল খেলে হাড় ক্ষয়ের ঝুঁকি বাড়ে 

ডাক্তার-নার্সদের অক্লান্ত পরিশ্রমের কথা মিডিয়ায় আসে না
জাতীয় হৃদরোগ ইন্সটিটিউটের সিসিউতে ভয়ানক কয়েক ঘন্টা

ডাক্তার-নার্সদের অক্লান্ত পরিশ্রমের কথা মিডিয়ায় আসে না