ডা. কামরুজ্জামান চৌধুরী

ডা. কামরুজ্জামান চৌধুরী

লেকচারার, উত্তরা আধুনিক মেডিকেল কলেজ


১৪ অগাস্ট, ২০১৮ ১০:৩৫ এএম

‘এলাকার জামাইরে একটু ফ্রি দেখবেন না?’

‘এলাকার জামাইরে একটু ফ্রি দেখবেন না?’

এক লোক– স্যার কি ফ্রি রোগী দেখেন?
আমি– জ্বি , গরিব হইলে ফ্রি দেখি।
লোক– আমি গরিব না কিন্তু ফ্রি দেখে দেওয়া লাগবে।
আমি– ফ্রি দেখতে হবে কেন?
লোক– আমি এই এলাকার মানুষ মানে এলাকার জামাই। ‘এলাকার জামাইরে একটু ফ্রি দেখবেন না, কেমনে হয়?’
আমি- ও আচ্ছা। 

দুই.
রোগী চ্যাম্বারের দরজা দিয়ে উকি মেরে, ‘ডাক্তার দেখি জোয়ান!’ 
চলে যেতে যেতে, ‘জোয়ান ডাক্তার দেখামু না, প্রফেসার দেখামু।’
- আমি (মনে মনে) জোয়ান ডাক্তার বলল। কষ্ট পামু নাকি খুশি হমু? 

তিন.
রোগীটা চেয়ারে বসে তার সম্যসার কথা বলা শুরু করল। ভাল করে দেখে দিলাম, ওষুধ লিখে দিলাম। 
- যাওয়ার সময় বলল, ‘আমি কিন্তু ভিজিট দিমু না।’
- কেন?
- মাত্র ৭০০০ টাকা বেতন পাই। ডাক্তাররে ভিজিট দিলে খামু কী?

চার.
স্যার, একটু তাড়াতাড়ি দেখে দেন আমাকে। 
- কেন? কোথাও যাবেন? 
- না, কাজ আছে। 
- আচ্ছা কী সম্যসা বলেন।
- রাতে ঘুম হয় না, কিন্তু ঘুমের ওষুধ দিবেন না। 
- কেন?
- ঘুমের ওষুধ দিলে রাত ১ টা পর্জন্ত স্টার জলসা আর স্টার প্লাস কেমনে দেখমু? 

পাঁচ. 
কী সম্যসা বলেন তো? 
- সম্যসা তো অনেক, কয়টা বলব?
- বলতে থাকেন। দেখি কয়টা বলতে পারেন। আমার কোন তাড়া নাই, বলতে থাকেন।
- মাছ, মাংশ খাইতে পারি না। মাছ, মাংশ যখন রক্তে যায় তখন কারেন্টের নেগেটিভ আর পজেটিভ একসাথে হইলে যেই রকম শর্ট করে আমার রক্তও সেই রকম শর্ট করে। 
- আচ্ছা। আর কী সম্যসা?
- ভাল খাবার খাইলে যেমন- দুধ, ডিম, মাংশ, পোলাউ... ধরেন বিয়ের দাওয়াত খাইলে আমার মাথার ভিতরে সেই রকম কারেন্টের নেগেটিভ আর পজেটিভের মত শর্ট করে। ধোঁয়া উড়ে, শরীর গরম হয়, মাথা দিয়ে আগুন যায়, সারা শরীর জ্বলে জ্বলে শেষ হয়ে যায়। 
- আমি (মনে মনে)– এই দেখি জন্ম থেকে জ্বলছি মাগো অবস্থা। এখন কী ফায়ার সার্ভিস ডাকমু নাকি ইলেক্ট্রিশিয়ান!

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের কৈফিয়তনামা

ভুল কাজ করে, ভুল কথা বলে সরকারকে বিব্রত করবেন না

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের কৈফিয়তনামা

ভুল কাজ করে, ভুল কথা বলে সরকারকে বিব্রত করবেন না

  এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
তুমি সবার প্রফেসর আবদুল্লাহ স্যার, আমার চির লোভহীন, চির সাধারণ বাবা
পিতাকে নিয়ে ছেলে সাদি আব্দুল্লাহ’র আবেগঘন লেখা

তুমি সবার প্রফেসর আবদুল্লাহ স্যার, আমার চির লোভহীন, চির সাধারণ বাবা

বেশিদিন ওমিপ্রাজল খেলে হাড় ক্ষয়ের ঝুঁকি বাড়ে 
কিডনি পাথরের ঝুঁকি বাড়ায় নিয়মিত অ্যান্টাসিড সেবন 

বেশিদিন ওমিপ্রাজল খেলে হাড় ক্ষয়ের ঝুঁকি বাড়ে 

ডাক্তার-নার্সদের অক্লান্ত পরিশ্রমের কথা মিডিয়ায় আসে না
জাতীয় হৃদরোগ ইন্সটিটিউটের সিসিউতে ভয়ানক কয়েক ঘন্টা

ডাক্তার-নার্সদের অক্লান্ত পরিশ্রমের কথা মিডিয়ায় আসে না