ঢাকা      শনিবার ২০, অক্টোবর ২০১৮ - ৪, কার্তিক, ১৪২৫ - হিজরী

এন্টিবায়োটিক প্রতিরোধী ব্যাকটেরিয়ায় জাপানে ৮ জনের মৃত্যু

এন্টিবায়োটিক প্রতিরোধী ব্যাকটেরিয়ায় জাপানের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের কাগুশিমা বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে ৮ জন রোগী মারা গেছেন। 

ব্যাকটেরিয়া সংক্রমণ রোধে দীর্ঘদিন ধরে যে এন্টিবায়োটিক ব্যবহার করা হচ্ছে সেই এন্টিবায়োটিক প্রতিরোধে ভয়ানকভাবে সক্ষম হয়ে উঠছে কিছু ব্যাকটেরিয়া। এই ধরনের ব্যাকটেরিয়ার সংক্রমণে শুক্রবার (৩ আগস্ট) কাগুশিমা বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে ৮ জন রোগী মারা গেছেন বলে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে। হাসপাতালটির আরও সাত রোগী একই ব্যাকটেরিয়ার সংক্রমণে আক্রান্ত হয়েছেন বলে জানিয়েছে তারা। 

২০১৬ সাল থেকে অজ্ঞাত কারণে অন্তত ১৫ জন রোগীর মারা যাওয়ার ঘটনার কারণ খুঁজতে গিয়ে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ এন্টিবায়োটিক প্রতিরোধক্ষম ব্যাকটেরিয়া দায়ী বলে দেখতে পায়।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার করা এন্টিবায়োটিক প্রতিরোধী ব্যাকটেরিয়ার তালিকায় প্রথমে যে ব্যাকটেরিয়া রয়েছে সেই আসিনেটোব্যাক্টর দ্বারা সংক্রমিত হয়ে এসব রোগী মারা গেছেন বলে জাপানের এই হাসপাতারের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।

বিশ্বব্যাপী চিকিৎসা ক্ষেত্রে আতঙ্ক তৈরি করা এই ব্যাকটেরিয়া ধ্বংস করতে এন্টিবায়োটিক ব্যর্থ হচ্ছে বলে জানিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)। মূলত এন্টিবায়োটিক ওষুধের যথেচ্ছ ব্যবহার ও সংক্রমিত রোগের ব্যাকটেরিয়ার জীনগত পরিবর্তন এদেরকে এন্টিবায়োটিক প্রতিরোধক্ষম করে তুলছে বলে বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন।

বিষয়টি সর্তকতার সাথে পর্যবেক্ষণ করা হচ্ছে উল্লেখ করে, জাপানের স্বাস্থ্যমন্ত্রী কাসুনোবু কাতো সাংবাদিকদের বলেছেন, আমরা চিকিৎসা সেবার আইন অনুযায়ী বিষয়টি দেখছি। এর আগে ২০০৯ থেকে ২০১০ সাল পর্যন্ত একবছরে দেশটিতে ৩৫ জন এই ব্যাকটেরিয়ার সংক্রমণে মারা গিয়েছিলেন।

এন্টিবায়োটিক বিরোধী ব্যাকটেরিয়া বিভিন্ন হাসপাতালে ছড়িয়ে পড়তে থাকায় বিশ্বব্যাপী ভয়ানক স্বাস্থ্য ঝুঁকি তৈরি হচ্ছে বলে সতর্ক করেছেন বিশেষজ্ঞরা।

২০১৭ সালে জেনেভায় বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার এক জরুরি বৈঠকে আট বিজ্ঞানী এক প্রতিবেদনে প্রথমবারের মতো এন্টিবায়োটিক প্রতিরোধী ব্যাকটেরিয়ার তালিকা প্রকাশ করেন।

এন্টিবায়োটিক প্রতিরোধক্ষম ব্যাকটেরিয়াকে মানব স্বাস্থ্যের জন্য ভয়ানক ঝুঁকি উল্লেখ করে ওই প্রতিবেদনে বলা হয়, সারা বিশ্বে প্রায় ৭ লাখ মানুষ প্রতি বছর এই এন্টিবায়োটিক প্রতিরোধক্ষম ব্যাকটেরিয়ার সংক্রমণে মারা যাচ্ছে; এখন পর্যন্ত কোন কার্যকর ওষুধ না থাকায় এই ব্যাকটেরিয়ার বিরুদ্ধে চিকিৎসকরা কিছু করতে পারছেন না।

নিউমোনিয়া, এইচআইভি, বা মূত্রনালীর সংক্রমণের মতো অনেক রোগের চিকিৎসাতেই প্রচিলত ওষুধে এখন আর কাজ হচ্ছে না। যার কারণ ব্যাকটেরিয়ার মধ্যে তৈরি হওয়া এন্টিবায়োটিকরোধী ক্ষমতা। মূলত এন্টিবায়োটিকের অপব্যবহারের কারণে, বিশ্বব্যাপী ১২ ধরনের ব্যাকটেরিয়া এন্টিবায়োটিক প্রতিরোধক্ষম হয়ে উঠেছে, যাদের প্রতিরোধ করা ক্রমেই দুঃসাধ্য হয়ে উঠছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন:

 


আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

ময়মনসিংহ মেডিকেলের শিক্ষার্থীই ভুটানের নতুন প্রধানমন্ত্রী

ময়মনসিংহ মেডিকেলের শিক্ষার্থীই ভুটানের নতুন প্রধানমন্ত্রী

ভুটানের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে চূড়ান্তভাবে নির্বাচিত হয়েছেন ময়মনসিংহ মেডিকেলের প্রাক্তন ছাত্র ডা. লোটে শেরিং।…

২২ মিনিট হার্ট বন্ধ থাকা বিস্ময়কর শিশু!

২২ মিনিট হার্ট বন্ধ থাকা বিস্ময়কর শিশু!

মেডিভয়েস ডেস্ক: লন্ডনে সেন্ট জর্জ হাসপাতালে মাত্র ২৭ সপ্তাহে 1.4 বিলিয়ন (৬৩৫ গ্রাম)…

ভারতে জিকা ভাইরাসে ৫০ জন আক্রান্ত

ভারতে জিকা ভাইরাসে ৫০ জন আক্রান্ত

মেডিভয়েস ডেস্ক: ভারতে জিকা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ৫০ জনে পৌঁছেছে।   সম্প্রতি দেশটির…

ইবোলা ভাইরাসে প্রতি ৭ দিনে ২৪ জনের মৃত্যু!

ইবোলা ভাইরাসে প্রতি ৭ দিনে ২৪ জনের মৃত্যু!

মেডিভয়েস রিপোর্ট: আফ্রিকার দেশ কঙ্গোতে ইবোলা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে গত ৭ দিনে ২৪…

স্বাস্থ্য ও শিক্ষাখাতে আরও বিনিয়োগ প্রয়োজন: বিশ্বব্যাংক

স্বাস্থ্য ও শিক্ষাখাতে আরও বিনিয়োগ প্রয়োজন: বিশ্বব্যাংক

মেডিভয়েস ডেস্ক: প্রযুক্তির কল্যাণে দ্রুত ক্রমবর্ধমান শ্রমবাজারে জরুরি ভিত্তিতে জনগণের স্বাস্থ্য ও…

বৈশ্বিক স্বাস্থ্য ঝুঁকিতে এঞ্জেলা মার্কেলের ঐক্যের ডাক

বৈশ্বিক স্বাস্থ্য ঝুঁকিতে এঞ্জেলা মার্কেলের ঐক্যের ডাক

মেডিভয়েস ডেস্ক: বিশ্বব্যাপী স্বাস্থ্য হুমকির বিরুদ্ধে লড়াইয়ে একযোগে কাজ করার আহ্বান জানিয়েছেন জার্মান চ্যান্সেলর…

আরো সংবাদ














জনপ্রিয় বিষয় সমূহ:

দুর্যোগ অধ্যাপক সায়েন্টিস্ট রিভিউ সাক্ষাৎকার মানসিক স্বাস্থ্য মেধাবী নিউরন বিএসএমএমইউ স্বাস্থ্যমন্ত্রী ঢামেক গবেষণা ফার্মাসিউটিক্যালস স্বাস্থ্য অধিদপ্তর